‘কপাল খারাপ, যখন সবচেয়ে বেশি দরকার হয় তখনই সাকিবকে পাই না’

|

বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা টেস্ট সিরিজ নিয়ে কথা বলেছেন নাজমুল হাসান পাপন।

অসুস্থতার জন্য সাকিবকে না পাওয়াটা বড় ধাক্কা বলে মনে করেন বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। তিনি বলেছেন, সাকিব না থাকায় আমাদের একজন বোলার কিংবা ব্যাটার কম নিয়ে খেলতে হবে। তবে এ নিয়ে আমাদের কিছু বলারও নেই, কিছু করারও নেই। আমাদের কপাল খারাপ। যখন সবচেয়ে বেশি দরকার হয় তখনই সাকিবকে পাই না। তবে আমাদের আশা, ও দ্রুত সুস্থ হোক এবং দলে ফিরে আসুক।

করোনা আক্রান্ত হলেও সাকিব সুস্থ আছেন বলে জানান পাপন। তবে তার অনুপস্থিতিতে দলে একজন ব্যাটার কম নিয়ে খেলতে হবে, যা বাড়তি চাপ বলে মনে করেন তিনি। তবে এবাদত-শরিফুলরা প্রোটিয়াদের সাথে যেভাবে বল করেছে তাতে দেশের মাটিতে তাদের নিয়ে বেশ আশাবাদী বিসিবি সভাপতি। তিনি বলেন, আমাদের কপাল খারাপ। এটা নিয়ে তো কিছু করার নেই। দোয়া করি সাকিব দ্রুত সুস্থ হয়ে যাক। আমার সাথে কথা হয়েছে ওর। বলেছে, এখন ভালো আছে। এ মুহূর্তে ওর কোনো সমস্যা নেই। ও না থাকাটা অবশ্যই একটা বড় ধাক্কা। কারণ, নিঃসন্দেহে শ্রীলঙ্কা অত্যন্ত শক্তিশালী দল।

বিসিবি সভাপতি আরও বলেন, অস্বীকার করার উপায় নেই যে, টেস্টে আমরা অপেক্ষাকৃত দুর্বল দল। তাই এই সিরিজ আমাদের জন্য বড় একটি সুযোগ ছিল। তবে সুযোগ এখনও আছে। কারণ, সাকিবের জায়গায় যে আসবে সে নিশ্চয়ই নিজেকে প্রমাণের চেষ্টা করবে। তাছাড়া আমাদের দলে এখনও বেশ কয়েকজন অভিজ্ঞ খেলোয়াড় আছে। তারা যদি ভালো খেলতে পারেন তবে, কোনো দলকেই না হারাতে পারার কোনো কারণ নেই।

শ্রীলঙ্কা সফরে টাইগারদের পেস বোলিং নিয়ে পাপন বলেন, আমাকে যদি জিজ্ঞেস করেন তো বলবো, তাসকিন থাকলে অবশ্যই সে খেলতো। শরিফুল খেলবে। এখন তাসকিন নেই। শুনেছি শরিফুল ফিট, সে খেলতে পারবে। তবে আমাদের অন্যান্য পেসার যেমন এবাদত, খালেদও কিন্তু ভালো খেলছে। পেস ডিপার্টমেন্ট নিয়ে তাই খুব বেশি চিন্তিত নই যে, আমাদের কোনো ভালো পেসারই নেই তা নয়। আমাদের সব পেসারেরই ট্যালেন্ট আছে। তবে এখন তাসকিন ও শরিফুলের পারফরমেন্স বেশ ভালো। তবে নিউজিল্যান্ড ও দক্ষিণ আফ্রিকায় এবাদত, খালেদরা যেমন পারফর্ম করেছে তারা যদি সেটা ধরে রাখতে পারে তবে ওরাও বিশ্বমানের বোলার হবে। আমি তাই চিন্তিত নই।

আরও পড়ুন: সাকিব করোনা আক্রান্ত; শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে প্রথম টেস্ট খেলতে পারবেন না

/এম ই





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply