‘ট্রাম্প মাস্তান এবং ভীতু’

|

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পকে ‘মাস্তান এবং ভীতু’ বলে উল্লেখ করেছেন ওহাইও অঙ্গরাজ্যের ডেটন শহরের মেয়র ন্যান হোয়েলি। এর আগে, প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প তার সফরকে ভুলভাবে উপস্থাপনের অভিযোগ তুলেন হোয়েলির বিরুদ্ধে।

বুধবার ট্রাম্প টেক্সাস ও ওহাইও অঙ্গরাজ্যে বন্দুক হামলার ঘটনাস্থল পরিদর্শনে যান। সেখানে বিক্ষোভের মুখে পড়েন তিনি। এরপর হাসপাতালে গিয়ে ভুক্তভোগী ও তাদের স্বজনদের সমবেদনা জানান ট্রাম্প। সেখানে ডেমোক্রেট আইনপ্রণেতা শ্যারড ব্রাউন ও ডেটনের মেয়র হোয়েলি ট্রাম্পকে স্বাগত জানান যদিও এটি নিয়ে তারা অস্বস্তিতে ছিলেন। পরে এক সংবাদ সম্মেলনে তারা বলেন, ভুক্তভোগী ও তাদের স্বজনরা অন্ত্র আইন কঠোর করার ও কট্টর অভিবাসনবিরোধী নীতি পরিহার করার জোর দাবি করেন ট্রাম্পের কাছে। এমনকি তারা দু’জনও এ ব্যাপারে কথা বলেন ট্রাম্পের সাথে। ওবামাকেয়ারের মতো প্রয়োজনীন স্বাস্থ্য বিল বাতিল না করারও আহ্বান জানান ট্রাম্পকে। (সূত্র: হাফিংটন পোস্ট)

এই প্রেস কনফারেন্স দেখেই ক্ষেপে যান ট্রাম্প। টুইটে দাবি করে, হাসপাতালে ভুক্তভোগী ও তাদের স্বজনদের সাথে তার সাক্ষাৎ ছিল উষ্ণ ও সৌহার্দপূর্ণ। তার দাবি, প্রেসিডেন্সিয়াল নির্বাচনে ফেল করা প্রার্থী শ্যারড ব্রাউন ও মেয়র হোয়েলি প্রেস কনফারেন্সে ‘মিথ্যাচার’ করেছেন।

এর প্রতিক্রিয়ায় সিএনএনকে হোয়েলি বলেন, ট্রাম্প মিথ্যেবাদী। শুধু এটি বলেই ক্ষান্ত দেননি। একইসাথে ট্রাম্পকে ‘মাস্তান ও ভীতু’ বলেও উল্লেখ করেন ডেটন মেয়র।

গেল রোববার একইদিনে টেক্সাস ও ওহাইও’তে বন্দুক হামলায় প্রাণ যায় ৩১ জনের। নিহতদের বেশিরভাগই হিস্প্যানিক। বিক্ষোভকারীদের অভিযোগ, ট্রাম্পের অভিবাসন বিরোধী অবস্থান এবং ঢিলেঢালা অস্ত্র আইনের কারণেই প্রায়শ ঘটছে বন্দুক হামলা।

যমুনা অনলাইন: টিএফ









Leave a reply