পটুয়াখালীতে হোটেল থেকে কর্মচারীর লাশ উদ্ধার

|

পটুয়াখালী প্রতিনিধি:

পটুয়াখালী শহরের লঞ্চঘাট এলাকায় একটি খাবারের হোটেল থেকে রুহুল আমিন রুবেল মোল্লা (১৭) নামের এক কিশোরের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। শুক্রবার সকালে ওই এলাকার হোটেল সিরাজ থেকে লাশটি উদ্ধার করে পোস্টমর্টেমের জন্য পটুয়াখালীর ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে। মৃত রুবেল সদর উপজেলার লাউকাঠি ইউনিয়নের ডেউখালী মৃত্যু আঃ রশিদ মোল্লার ছেলে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, কয়েক বছর আগে ইয়াবাসহ রুবেল পুলিশের হাতে ধরা পড়ে। এসময় রুবেলের পায়ের পাতায় পুলিশ মারধর করে বলে অভিযোগ উঠে। জেল হাজত থেকে মুক্ত হবার পরে মানসিক ভারসাম্যহীন হয়ে পড়ে রুবেল। পরে নেশায় আসক্ত হয়ে পড়ে। নেশা থেকে মুক্ত করতে স্থানীয়রা প্রায়শই ওকে মারধর করতো-এমন অভিযোগও পাওয়া গেছে।

স্থানীয়দের দাবী পুলিশের সুষ্ঠ তদন্তে বের হতে পারে রুবেল মারা যাবার প্রকৃত কারণ বা রহস্য।

এদিকে সিরাজ হোটেলের কর্মচারী রুবেল আত্মহত্যা করেছে বলে পটুয়াখালী সদর থানার পরিদর্শক অপারেশন আল মামুন নিশ্চিত করে বলে জানান, হোটেলে থাকা সিসি ক্যামেরায় ধারণকৃত ফুটেজ দেখে আপাতত দৃষ্টিতে তাই মনে হচ্ছে। তিনি জানান, রুবেল গামছা দিয়ে গলায় ফাস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেছে। তবে কেন বা কি কারণে সে আত্নহত্যা করেছে তা এখনও সঠিকভাবে জানা যায়নি।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply