টাকা না পেয়ে মামলা ঠুকে দিলেন শচীন

|

অস্ট্রেলিয়ার এক ক্রীড়া সরঞ্জাম প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে মামলা ঠুকে দিয়েছেন ভারতের লিটল মাস্টার ক্রিকেটার শচীন টেন্ডুলকার।

স্পার্টান স্পোর্টস নামের ওই প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে শচীনের অভিযোগ, রয়্যালটি না দিয়ে ব্যবসায়িক প্রচারণায় তার নাম ও ছবি ব্যবহার করেছে প্রতিষ্ঠানটি।

সিডনি মর্নিং হেরাল্ড জানিয়েছে, গত ৫ জুন সিডনির আদালতে এ বিষয়ে মামলা দায়ের করেন শচীন। আগামী ২৬ জুন মামলার প্রথম শুনানি অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

মামলার বিবরণিতে যা লেখা রয়েছে, ২০১৬ সালে সিডনি ভিত্তিক এই প্রতিষ্ঠানটির সঙ্গে শচীনের একটি চুক্তি হয়। চুক্তির নাম দেয়া হয় ‘শচিন বাই স্পার্টান’।

চুক্তিতে বলা হয়, প্রতিষ্ঠানটি তাদের ক্রীড়াপণ্য ও পোশাকে শচীনের নাম, ছবি ও লোগো ব্যবহার করবে। বিনিময়ে শচীনকে প্রতি বছর ১০ লাখ অস্ট্রেলিয়ান ডলার (বাংলাদেশি মুদ্রায় ৫ কোটি ৩০ লাখ টাকা) দিতে হবে।

২০১৬ সাল থেকে মুম্বাই ও লন্ডনের বিভিন্ন স্থানে স্পার্টানের বিভিন্ন প্রচারণামূলক অনুষ্ঠানে অংশ নিয়েছিলেন তিনি। কিন্তু স্পার্টান তাকে এ কাজের জন্য কোনো বিল পরিশোধ করেনি। ২০১৮ সালের শুরুতে বকেয়া মিটিয়ে দিতে স্পার্টানকে অনুরোধ করেন শচীন। কিন্তু গত বছরের সেপ্টেম্বর পর্যন্ত তাকে রয়্যালটির কোনো টাকা দেয়নি স্পার্টান।

বিভিন্ন ভারতীয় গণমাধ্যমে শচীন জানান, গত বছরই রয়্যালটির কোনো টাকা না দেয়ায় চুক্তি বাতিল করে তার নাম, ছবি কিংবা লোগো ব্যবহার করতে নিষেধ করে দিয়েছিলেন প্রতিষ্ঠানটিকে। কিন্তু স্পার্টান তার কথা কানে না তুলে আগের মতোই শচীনের নাম, ছবি ও লোগো ব্যবহার করে যাচ্ছিল। তাই বাধ্য হয়েই এবার মামলা ঠুকে দিলেন তিনি।

স্পার্টানের বিরুদ্ধে শচীনের এ মামলার কাগজপত্র অস্ট্রেলিয়ার ফেডারেল কোর্ট নথিভুক্ত করেছে এবং বার্তা সংস্থা রয়টার্স সেগুলো পর্যবেক্ষণ করছে।









Leave a reply