বিয়ে ভেঙে যাওয়ায় বগুড়ায় স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতার আত্মহত্যা

|

বগুড়ার শেরপুর উপজেলায় বারবার বিয়ে ভেঙে যাওয়ায় অভিমানে মনিরুল ইসলাম মনির (২২) নামে স্বেচ্ছাসেবক লীগের এক নেতা আত্মহত্যা করেছেন। বৃহস্পতিবার (১৩ জুন) সকালে শেরপুর উপজেলার কয়েরখালী গ্রাম থেকে তার মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়।

নিহত মনির খানপুর ইউনিয়নের কয়েরখালী গ্রামের রফিকুল ইসলামের একমাত্র ছেলে। তিনি খানপুর ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা ছিলেন।

বগুড়ার শেরপুর থানার ওসি হুমায়ুন কবির জানান, নানা কারণে মনিরের কয়েকটি বিয়ে ভেঙে যায়। এতে তিনি মানসিকভাবে ভেঙে পড়েন।

বুধবার রাতের কোনো একসময় মনির নিজ ঘরে সিলিংফ্যানের সঙ্গে গলায় গামছা পেঁচিয়ে ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন।

বৃহস্পতিবার সকালে বাড়ির লোকজন ঘরে মনিরের কোনো সাড়া না পেয়ে দরজা ভেঙে তার ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করেন। পরে শেরপুর থানাপুলিশ মরদেহ বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়েছে। এ ব্যাপারে শেরপুর থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

শেরপুর উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক নুরে আলম সানি জানান, বর্তমানে খানপুর ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবক লীগের কমিটি নেই। মনির ওই কমিটির পদপ্রত্যাশী ছিলেন। তবে তিনি তার আত্মহত্যার কারণ সম্পর্কে কিছু বলতে পারেননি।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply