তিউনিসিয়া উপকূলে ৭৫ অভিবাসীকে নিয়ে ভাসছে জাহাজ, ৬৪ জনই বাংলাদেশি

|

তিউনিসিয়া উপকূলে একটি উদ্ধারকারী জাহাজে ১২ দিন ধরে আটকা পড়ে আছে ৬৪ জন বাংলাদেশি। মঙ্গলবার রেড ক্রিসেন্টের বরাত দিয়ে বার্তা সংস্থা রয়টার্স এ খবর জানিয়েছে।

রেড ক্রিসেন্টের দেয়া তথ্য মতে, তিউনিসিয়া উপকূল থেকে ৭৫ অভিবাসনপ্রত্যাশীকে উদ্ধার করেছিল একটি মিশরীয় জাহাজ। অভিবাসীদের দলটি লিবিয়া থেকে রওনা দিয়েছিল। এদের মধ্যে ৬৪ জন বাংলাদেশি এবং বাকীরা মরক্কো, সুদান ও মিশর থেকে আসা।

তাদের কীভাবে উদ্ধার করা হয়েছে সে ব্যাপারে বিস্তারিত তথ্য পাওয়া যায়নি। তিউনিসিয়ার দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলীয় শহর মেদিনাইনের কর্তৃপক্ষ উদ্ধারকারী ওই জাহাজটিকে উপকূলে ভিড়তে দিচ্ছে না। তাদের দাবি, অভিবাসী শিবিরগুলো ইতোমধ্যে লোকারণ্য। নতুন করে সেখানে কাউকে রাখা সম্ভব নয়। এ কারণে নৌযানটিকে উপকূলীয় শহর জারজিস থেকে ২৫ কিলোমিটার দূরে ভাসমান রাখা হয়েছে।

তিউনিসিয়া সরকারের সূত্র জানিয়েছে, অভিবাসনপ্রত্যাশীরা খাদ্য ও চিকিৎসা উপকরণ গ্রহণে অস্বীকৃতি জানিয়েছে। তারা সাগর পাড়ি দিয়ে ইউরোপে যেতে দেওয়ার সুযোগ চান।

রেড ক্রিসেন্টের কর্মকর্তা মোঙ্গি স্লিম জানিয়েছেন, চিকিৎসকরা নৌযানটিতে গিয়েছেন এবং কয়েকজনকে চিকিৎসা দিয়েছেন। তবে অন্যরা যে কোনো ধরণের সহায়তা প্রত্যাখ্যান করেছেন।

রয়টার্সকে তিনি বলেন, ‘১২ দিন সাগরে থাকার পর অভিবাসীরা খুবই খারাপ পরিস্থিতিতে আছেন।’

গত মাসে তিউনিসিয়া উপকূলে ভূমধ্যসাগরে নৌকা ডুবে ৬৫ অভিবাসীর মৃত্যু হয়েছিল। এদের মধ্যে অনেক বাংলাদেশিও ছিলেন।









Leave a reply