আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপে সংঘর্ষ, ৩০ জন হাসপাতালে ভর্তি

|

স্টাফ রিপোর্টার, মাদারীপুর:

মাদারীপুর সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ ও বিদ্রোহী প্রার্থীর সমর্থকদের মাঝে সংঘর্ষে কমপক্ষে ৩০ জন আহত হয়েছে। এই ঘটনায় এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে ১১জনকে আটক করা হয় ।

স্থানীয় ও পুলিশ ও হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, মাদারীপুর সদর উপজেলা নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনিত প্রার্থী হয়েছেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কাজল কৃষ্ণ দে। অপরদিকে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী হয়েছেন সাবেক নৌপরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খানের ছোট ভাই ওবায়দুর রহমান খান কালু।

পোষ্টার লাগানোকে কেন্দ্র করে সকালে সদর উপজেলা পেয়ারপুর ইউনিয়নের গাছবাড়িয়া এলাকায় এই দুগ্রুপের মাঝে কথাকাটাকাটি হয়। এক পর্যায় দুই গ্রুপ দফায় দফায় দেশীয় অস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে লিপ্ত হয়। এতে দুই পক্ষের ৩০ জন আহত হয়েছে। আহতদের উদ্ধার করে মাদারীপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

এদিকে এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

মাদারীপুর সদর হাসাপাতলে মেডিকেল অফিসার ইমরানুর রহমান সনেট বলেন, সংঘর্ষের ঘটনায় এ পর্যন্ত ২৮ জনকে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। আমরা সামধ্যমত চিকিৎসা সেবা দিচ্ছি।

মাদারীপুর সদর থানার এসআই লুৎফর রহমান বলেন, গাছবাড়িয়া এলাকা ও হাসপাতাল এলাকায় উত্তেজনা থাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। এখন পরিস্থিতি স্বাভাবিক।









Leave a reply