‘জংশন’ নাম ঢেকে দেয়া হলো কালো কাপড়ে

|

নিজস্ব প্রতিবেদক, নওগাঁ:
বগুড়ার সান্তাহার রেল স্টেশনে ‘জংশন’ লেখাগুলো কালো কাপড় দিয়ে ঢেকে দিয়েছে স্থানীয়রা। পঞ্চগড়-ঢাকা রুটে নতুন ট্রেন ‘পঞ্চগড় এক্সপ্রেস’ সান্তাহারে যাত্রা বিরতি না থাকায় স্থানীয়রা আন্দোলনের অংশ হিসেবে এই কাজ করেছে। আজ (২৫ মে ২০১৯) গণ ভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ট্রেনটি উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

সংশ্লিষ্ট দপ্তরের কর্মকর্তারা জানান, পঞ্চগড়-ঢাকা রেলপথ রুটের দুরত্ব ৫৯৩ কিলোমিটার। যা পঞ্চগড় এক্সপ্রেস ট্রেনটি ১০ ঘণ্টায় গন্তব্যে পৌঁছে যাবে। প্রতিদিন বেলা সোয়া দুইটায় পঞ্চগড় থেকে ঢাকা ও রাত ১২ টা ১০ মিনিটে ঢাকা থেকে পঞ্চগড় অভিমুখে ছেড়ে যাবে। পথে যাত্রা বিরতি করবে ঠাকুরগাঁও, দিনাজপুর ও পার্বতীপুরে। সিডিউল অনুসারে ট্রেনটি সান্তাহার স্টেশন অতিক্রম করবে বিকেল পৌনে পাঁচটা থেকে পাঁচটায়।

এদিকে সান্তাহারে ‘পঞ্চগড় এক্সপ্রেস’ টেনের যাত্রা বিরতির দাবিতে সপ্তাহ খানেক ধরে আন্দোলন করে আসছে স্থানীয় সর্ব দলীয় সংগ্রাম কমিটি।

আন্দোলনকারীরা জানান, উদ্বোধনের দিনে যাতে ট্রেনটি তাদের দেখতে না হয়, সে জন্য প্রতীকি প্রতিবাদ কর্মসূচী হিসেবে তারা চোখে কালো কাপড় বেঁধে মানববন্ধন করবেন।

তারা আরো বলেন, সান্তাহার উত্তরাঞ্চলের সবচেয়ে বড় রেল জংশন। ষ্টেশনটি অবস্থিত নওগাঁ, বগুড়া ও জয়পুরহাটের মোহনায়। এছাড়া রাজস্ব আয়ের দিক থেকে সান্তাহার স্টেশন সব চাইতে এগিয়ে। প্রতিটি ট্রেনই যাত্রা বিরতি করে সান্তাহারে।

যতো দিন এই ট্রেন সান্তাহারে যাত্রা বিরতি না করবে ততো দিন শান্তিপূর্ন প্রতীকি কর্মসূচী পালন করবে বলে জানান আন্দোলনকারীরা।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply