ইরানি তেল আমদানিতে নিষেধাজ্ঞা তুলতে আমেরিকাকে দিল্লির অনুরোধ

|

ইরান থেকে ভারতে তেল আমদানিতে নিষেধাজ্ঞা তুলতে আমেরিকাকে অনুরোধ করেছে নয়াদিল্লি। আগামী ২ মে-এর পর থেকে ইরানের তেল নেওয়া যাবে না— এই নিষেধাজ্ঞা শিথিল করতে ভারতের বিদেশমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ কথা বলেছেন মার্কিন বিদেশ সচিব মাইক পম্পেও-এর সঙ্গে। সূত্র: আনন্দবাজার

ইরানের অর্থনীতির অন্যতম ভিত্তিই হল তেল । তাই কোনও দেশ ইরানের কাছ থেকে তেল কিনতে পারবে না— আমেরিকার আরোপ করা এই নিষেধাজ্ঞা পুরোদস্তুর চালু করার কথা আগামী ২ মে-এর মধ্যে। কিন্তু তেল-সহ সামগ্রিক শক্তিক্ষেত্রে ইরানের উপর অনেকটাই নির্ভর করে ভারত। হঠাৎ করে সেই আমদানি বন্ধ করলে ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে ভারতের শক্তি পরিকাঠামো। ভারতের তরফে সেই কথা জানিয়েই নিষেধাজ্ঞা শিথিল করার অনুরোধ জানানো হয়েছে মার্কিন বিদেশ সচিবের কাছে।

যদিও আমেরিকার তরফে এ নিয়ে এখনও কোনও সাড়া পাওয়া যায়নি বলে জানা যাচ্ছে বিভিন্ন সূত্র থেকে। অনেকটা ভারতের মতোই পরিস্থিতি তুরস্কেরও। তারাও তেলের জন্য অনেকটাই নির্ভর করে ইরানের উপর। তুরস্কের প্রেসিডেন্টের প্রধান উপদেষ্টা ইব্রাহিম কলিম বলেছেন, ‘‘ভারত এবং তুরস্ক দুই দেশই নিষেধাজ্ঞা শিথিল করার অনুরোধ জানিয়েছে আমেরিকার কাছে। আমাদের বিশ্বাস, নিষেধাজ্ঞা চাপিয়ে কাজের কাজ কিছু হয় না। এতে খারাপ প্রভাব পড়ে সবার উপরেই। ইউরোপের অনেক দেশের অবস্থাও আমাদেরই মতো।’’

সূত্র: আনন্দবাজার









Leave a reply