আমব্রেলা মুভমেন্টে অংশগ্রহণকারীদের কারাদণ্ড দিল চীন

|

আমব্রেলা মুভমেন্টে অংশ নেয়ার জন্য হংকংয়ের চার বিক্ষোভকারীকে সর্বোচ্চ ১৬ মাসের কারাদণ্ড দিয়েছে চীন। এতে অংশ নেয়া আরো চারজনের রায় আজ বুধবার পর্যন্ত মুলতবি করা হয়েছে।

বুধবার সকালে পশ্চিম কাউলুন আদালতের বিচারক জনি চ্যান এ রায় দেন। তিনি রায়ে বলেন, এ আন্দোলন জনগণের জন্য অসুবিধা ও প্রতিবন্ধকতা তৈরি করছে।

রায়ে সমাজবিজ্ঞানের অধ্যাপক চ্যান কি ম্যান ও আইনের অধ্যাপক বেনি তাইকে এ আন্দোলন সংগঠিত করার অপরাধে কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। এছাড়াও ৭৫ বছর বয়সী অবসরপ্রাপ্ত মন্ত্রী চ্যু ইয়্যুমিংকেও ১৬ মাসের জেল দেয়া হয়েছে তবে তার এ সাজা দু বছরের জন্য মওকুফ করা হয়েছে।

এই তিনজনের বিরুদ্ধে আইন অমান্য করে বিক্ষোভকারীদেরকে সংগঠিত করার অভিযোগ আনা হয়েছে।

এছাড়াও আরো নয় বিক্ষোভকারীকে অভিযুক্ত করা হয়েছে আমব্রেলা মুভমেন্টে অংশ নেয়ার জন্য।

এই মাসেই ছয়টি সংঘর্ষে জড়ানোর দায়ে রাফেল উন এবং শিও কে চ্যুনকে আট মাসের কারাদণ্ড দেয়া হয়। তানিয়া চ্যান নামে এক বিক্ষোভকারীর রায় ‍জুন পর্যন্ত মুলতবি রাখা হয় এবং ব্রেন সার্জারীর জন্য তার জামিন বৃদ্ধি করা হয়।

এরআগে ২০১৪ সালে বিক্ষোভকারীরা নিজেদের স্বায়ত্ব শাসন ও নেতৃত্ব বাছাই করে নেয়ার দাবিতে হংকং জুড়ে ধর্মঘট পালন করেছিল।

উল্লেখ্য, হংকং’র ২০১৭ নির্বাচনে চীন সরকারের সরাসরি হস্তক্ষেপের সিদ্ধান্তের প্রতিবাদে ২০১৪ সালে তারা সর্বপ্রথম বিক্ষোভে নামে।

যমুনা অনলাইন/ইএ


সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply