গাইবান্ধায় জলাশয় ইজারার টেন্ডার নিয়ে আ’লীগের দু পক্ষের ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া

|

গাইবান্ধা প্রতিনিধি
গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে ১০৬টি সরকারি জলাশয় ইজারা টেন্ডার নিয়ে আওয়ামী লীগের দু পক্ষের ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও ইট পাটকেল নিক্ষেপের ঘটনা ঘটেছে। এতে এক সাংবাদিকসহ উভয় পক্ষের ১০ জন আহত হয়েছেন। পরে পুলিশ টিয়ার শেল ও রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

বুধবার (৬ মার্চ) দুপুরে গোবিন্দগঞ্জ উপজেলা পরিষদ চত্বরে এ ঘটনা ঘটে। আহতদের উদ্ধার করে গোবিন্দগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, ১০৬টি সরকারি জলাশয় ইজারা দিতে টেন্ডার আহ্বান করে গোবিন্দগঞ্জ উপজেলা প্রশাসন। টেন্ডারে সিডিউল ফেলার শেষ দিন ছিল আজ বুধবার। গোবিন্দগঞ্জ নিবার্হী অফিসারের কার্যালয়ে রাখা টেন্ডার বাক্সে প্রথমে বর্তমান সংদস সদস্যর লোকজন টেন্ডার (সিডিউল) ফেলে। তারা সিডিউল ফেলে বাক্সে দখল করে বসে থাকে। পরে সাবেক সংসদ সদস্যর লোকজন এসে টেন্ডার বাক্সে সিডিউল ফেলতে গেলে বর্তমান সংসদ সদস্যর লোকজন বাঁধা দেয়। এতে উভয়ের মধ্যে কথা কাটাকাটি এক পর্যায়ে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। পরে উভয়ের মধ্যে ধাওয়া পাল্লা ধাওয়া শুরু হয। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাবার বুলেট ও টিয়ার সেল নিক্ষেপ করে। এতে স্থানীয় সাংবাদিক মোয়াজ্জেম হোসেনসহ উভয়পক্ষের অন্তত ১০ জন আহত হয়।

গোবিন্দগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) একেএম মেহেদী হাসান বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নিতে রাবার বুলেট ও টিয়ার সেল ছোড়া হয়। উপজেলা পরিষদ চত্তরে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

গোবিন্দগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) রামকৃষ্ বর্মন বলেন, টেন্ডার নিয়ে যে পরিস্থিতি তাতে টেন্ডার প্রক্রিয়া স্থগিত করা হয়েছে। পরবর্তীতে টেন্ডারের বিষয়টি অবগত করা হবে।









Leave a reply