ঝিনাইদহে ৩৩২ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শহীদ মিনার নেই

|

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি
ভাষা আন্দোলনের ৬৮ বছর এবং স্বাধীনতার ৪৮ বছরেও ভাষা শহীদদের প্রতি সম্মান ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে বিনম্র শ্রদ্ধার জন্য ঝিনাইদহে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গুলোতে শহীদ মিনার তৈরি হয়নি। প্রতি বছর ২১ শে ফেব্রুয়ারি আসলেই নানা আয়োজনের মধ্যদিয়ে দিনটি পালিত হয়। কিন্তু কোন কোন প্রতিষ্ঠানে শহীদ মিনার না থাকায় আজও শহীদের প্রতি যথাযথ শ্রদ্ধাজ্ঞলি নিবেদন করতে পারেনাই শিক্ষার্থীরা।

জানা গেছে, ঝিনাইদহ জেলার ৬ উপজেলায় সরকারি, বেসরকারি হিসাবে প্রাথমিক, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা ৭’শ ৩৮ টি। সেখানে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক ২’শ ৫৭ টি, প্রাথমিক ২’শ ১৫ টি, নন এমপিও ভুক্ত ১’শ ৫৪ টি, এবতেদায়ি, দাখিল, আলিম ও কামিল মাদ্রাসার সংখ্যা ১’শ ১২ টি। আর এসকল প্রতিষ্ঠানের মধ্যে সরকারি হিসাব মতে শহীদ মিনার আছে ৪’শ ৬ টি প্রতিষ্ঠানে। আর সদর উপজেলার ৪০ টি, কালিগজ্ঞে ৩৯টি, কোটচাঁদপুরে ১৪টি, মহেশপুরে ২০টি, শৈলকুপায় ৪৫টি, এবং হরিনাকুন্ডু উপজেলায় ২০টি প্রতিষ্ঠানে শহীদ মিনার নেই। এছাড়া জেলায় ১’শ ১২টি মাদ্রাসার মধ্যে মাত্র ১২ টি প্রতিষ্ঠানে শহীদ মিনার রয়েছে।

এ বিষয়ে নন এমপিও ভুক্ত শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক শওকত আলি বলেন, দীর্ঘদিন প্রতিষ্ঠান গুলোর শিক্ষক কর্মচারি বেতন না হওয়ায় চরম মানবেতর জীবনযাপন করতে হচ্ছে। এরপরও কোন কোন প্রতিষ্ঠান ভাষা শহীদের সম্মানে নিজ খরচে শহীদ মিনার নির্মাণ করেছেন। তবে এখনও নন এমপিও অধিকাংশ প্রতিষ্ঠানেই শহীদ মিনার নেই বলে তিনি জানান।

ঝিনাইদহ জেলা শিক্ষক সমিতির সভাপতি মহিউদ্দিন বলেন, বছর দুয়েক আগে যে সকল প্রতিষ্ঠানে শহীদ মিনার নেই, তার তালিকা আমরা শিক্ষা অফিসে দিয়ে ছিলাম। কিন্তু পরে তালিকার বিষয়ে কোন তথ্য আমাদেরকে জানানো হয়নি।

এ বিষয়ে ঝিনাইদহ জেলা শিক্ষা অফিসার (মাধ্যমিক) বলেন, এখানে আমি আসার পর শহীদ মিনার নির্মাণের ব্যাপারে কোন আলোচনা বা তথ্য পাইনি। তবে আমি দেখেছি যেখানে একাধিক প্রতিষ্ঠান ( প্রাথমিক, মাধ্যমিক, উচ্চ মাধ্যমিক, স্কুল এন্ড কলেজ, মাদ্রাসা) রয়েছে সেখানে একটি করে শহীদ মিনার আছে। আমি নতুন করে খোঁজখবর নিবো।









Leave a reply