উৎসবমুখর পরিবেশে নাটোর মুক্ত দিবস পালিত

|

নাটোর প্রতিনিধি:

নাটোরে আজ উৎসবমুখর পরিবেশে নাটোর মুক্ত দিবস পালিত হয়েছে।
এ উপলক্ষে শুক্রবার সকালে শহরের ভবানীগঞ্জ মোড়ের মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্স ভবন থেকে মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ড জেলা ইউনিট ও মুক্তিযোদ্ধা সংসদের যৌথ উদ্যোগে একটি বর্ণাঢ্য র‌্যালি বের করা হয়। র‌্যালিটি বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে মাদ্রাসা মোড় শহীদ স্মৃতিস্তম্ভের পাদদেশে গিয়ে শেষ হয়।

র‍্যালি শেষে এক আলোচনা সভায় বক্তারা বলেন, ১৯৭১ সনের ১৬ ডিসেম্বর ঢাকা সহ সারাদেশের বেশির ভাগ এলাকা মুক্ত হলেও নাটোর মুক্ত হয় ২১ ডিসেম্বর। উত্তরা লের হেড কোয়ার্টার হওয়ায় ১৬ ডিসেম্বর থেকে ২০ ডিসেম্বরের মধ্যে রাজশাহী, পাবনা, চাঁপাইনবাবগঞ্জ সহ উত্তরা লের সকল জেলা থেকে সকল পাক সেনা তাদের অবশিষ্ট গোলা-বারুদ ও যানবাহন নাটোরে নিয়ে এসে দিঘাপতিয়া গভর্ণর হাউস, নবাব সিরাজ-উদ্-দৌলা কলেজ, রাণী ভবাণী রাজবাড়ি সহ বিভিন্ন স্থানে এসে জড়ো হয়। ১৯৭১ সনের ২১ ডিসেম্বর দিঘাপতিয়া গভর্ণর হাউসে (উত্তরা গণববন) নাটোর গ্যারিসনের কমান্ডার ব্রিগেডিয়ার নওয়াব আহমেদ আশরাফ পাক বাহিনীর অফিসার ও জওয়ান মিলিয়ে মোট সাত হাজার ৬শ’ ৯৫ সেনা সদস্য সহ তাদের হেফাজতে থাকা রসদ ও যানবাহন নিয়ে মিত্রবাহিনীর পক্ষে ভারতের ১৬৫ মাউন্টেন ব্রিগেডের ব্রিগেডিয়ার রঘুবীর সিং পান্নুর কাছে আত্মসমর্পণ করেন। সেই থেকে ঐ দিনটিকেই নাটোর মুক্ত দিবস হিসেবে পালন করা হয়।

আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন মুক্তিযোদ্ধা সিরাজুল ইসলাম, শেখ আলাউদ্দিন,মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ড জেলা ইউনিটের সদস্য সচিব সৈয়দ মোস্তাক আলী মুকুল, যুগ্ম আহবায়ক রফিকুল ইসলাম নান্টুসহ মুক্তিযোদ্ধা ও মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ডের সদস্যরা।









Leave a reply