রায়কে স্বাগত জানিয়ে বিভিন্ন স্থানে আওয়ামী লীগের মিছিল

|

গ্রেনেড হামলার রায়কে স্বাগত জানিয়ে বিভিন্ন জায়গায় মিছিল করেছে আওয়ামী লীগ।

ঘোষিত রায়ে উচ্ছাস প্রকাশ করেছে ঠাকুরগাঁও জেলা আওয়ামী লীগসহ সহযোগী সংগঠন। দুপুরে জেলা কার্যালয়ের সামনে নেতাকর্মী মিষ্টি বিতরণ করে। আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদকসহ জেলা কমিটির সিনিয়র নেতারা এতে উপস্থিত ছিলেন। এদিকে রায়ের পর আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে বিপুল পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

সিলেটে মিছিল ও সমাবেশ করেছে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। এসময় বক্তারা গ্রেনেড হামলার মাস্টারমাইন্ড তারেক রহমানের ফাঁসির আদেশ না হওয়ায় হতাশা প্রকাশ করেন। একইসাথে তৎকালীন সরকার প্রধান ও দল হিসেবে বিএনপির বিচার দাবি করে আওয়ামী লীগের নেতারা।

রায়কে স্বাগত জানিয়ে আনন্দ মিছিল হয়েছে গাজীপুরে। এসময় সংক্ষিপ্ত সমাবেশে নেতারা তারেক জিয়ার ফাঁসির দাবি জানান। একই সাথে জেলা ও মহানগর কমিটির পক্ষ থেকে আলাদাভাবে প্রতিক্রিয়া জানানো। হয়।

২১শে আগষ্টের গ্রেনেড হামলা মামলার রায় প্রকাশ করায় কুমিল্লায় মিছিল করেছে আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা। দুপুরে রায় প্রকাশের পর নগরীর কান্দিরপাড় টাউনহল মাঠ থেকে মিছিল বের হয়। এসময় বিদেশে পলাতক তারেক রহমান সহ সকল আসামীদের দেশে ফিরিয়ে আনার দাবি জানানো হয়। দ্রুত সাজা কার্যকর করারও দাবি জানায় তারা।

রায়ের পর ঝিনাইদহ জেলা আওয়ামীলীগের কার্যালয় থেকে একটি আনন্দ মিছিল বের হয়। মিছিলটি শহরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে পায়রা চত্তরে গিয়ে শেষ হয়। এ সময় সংক্ষিপ্ত সমাবেশে আদালতের রায়কে স্বাগত জানিয়ে অবিলম্বে মৃত্যুদন্ডপ্রাপ্ত আসামীদের রায় কার্যকর ও তারেক রহমানকে দেশে ফিরিয়ে আনার দাবি জানানো হয়।

রায় দ্রুত কার্যকরের দাবিতে মিছিল হয়েছে পাবনায়। মিছিল থেকে পলাতক আসামিদের দ্রুত ফিরিয়ে আনাসহ মৃত্যুদন্ডপ্রাপ্ত আসামিদের ফাঁসি দ্রুত কার্যকরের দাবি জানানো হয়। পরে জেলা কার্যালয়ের সামনে নেতাকর্মীরা মিষ্টি বিতরণ করেন। রায়ের পর শহরে আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে বিপুল সংখ্যক পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।

রায় ঘোষণার পর চট্টগ্রামেও মিছিল করে আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা। এসময় সব আসামির মৃত্যুদণ্ডের দাবি জানায় তারা। রায়কে স্বাগত জানালেও মিশ্র প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন বিভিন্ন জেলা ও মহানগর নেতারা।









Leave a reply