নাব্য সংকটে শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ি রুটে ফেরি চলাচল ব্যাহত

|

নাব্য সংকটের কারণে শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ি রুটে নৌযান চলাচলে অচলাবস্থা সৃষ্টি হয়েছে। এতে চরম ভোগান্তির শিকার হচ্ছেন যাত্রী ও চালকরা। খনন করে পলি অপসারণের চেষ্টা হলেও তীব্র স্রোতের কারণে তা বিঘ্নিত হচ্ছে।

উজানের পানি নামার সাথে সাথে শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ি রুটে তীব্র হচ্ছে নাব্য সংকট। যার বিরূপ প্রভাব পড়েছে নৌচলাচলে। দিনের বেশিরভাগ সময়, অধিকাংশ ফেরি পারাপার বন্ধ থাকছে। কখনো কখনো নিষেধাজ্ঞা বহাল থাকছে সারাবেলাই। ফলে ঘাটে বাড়ছে অপেক্ষায় থাকা গাড়ির সংখ্যা। চরম ভোগান্তিতে পড়ছেন যাত্রী ও চালকরা।

বিআইডব্লিউটিসি বলছে, গেল দুদিনে পদ্মার শিমুলিয়া অংশে পানি কমেছে প্রায় ৪৫ সেন্টিমিটার। এতে নৌরুটের লৌহজং টার্নিং পয়েন্টে দেখা দিয়েছে নাব্য সংকট। খনন কার্যক্রম বিঘ্নিত হওয়ায় পলি পড়ে জেগে উঠছে ছোট-বড় ডুবোচর। সবমিলিয়ে ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে উঠেছে নদী পারাপার।

নৌযান চলাচল ব্যাহত হওয়ায় ঘাটে আটকে কষ্ট পাচ্ছেন চিকিৎসার জন্য ঢাকামুখী রোগীরা। বিপাকে পড়েছে পণ্যবাহী ট্রাকের লোকজনও। পচতে শুরু করেছে মৌসুমি সবজিসহ বিভিন্ন কাঁচাপণ্য। তাই ভোগান্তি এড়াতে বিকল্প রুট ব্যবহারের পরামর্শ দিচ্ছে ঘাট কর্তৃপক্ষ।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply