‘নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার আগেই সরকারকে পদত্যাগ করতে হবে’

|

অবিলম্বে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্তি দিতে হবে। নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার আগেই সরকারকে পদত্যাগ করতে হবে। সংসদ ভেঙে দিয়ে লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড তৈরি করতে হবে। এখন আর অপেক্ষার সময় নেই। মুক্ত করতে হবে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে। এদেশের মানুষ আওয়ামী লীগ থেকে অনেক দূরে সরে গেছে, তারা এখন দেওলিয়া দল। বিএনপি’র ৪০তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে নয়াপল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে এক জনসভায় বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এ কথা বলেন।

দুপুর দু’টা থেকে জনসভা শুরু হলেও সকাল থেকেই নয়াপল্টন কার্যালয়ের সামনে আসতে থাকেন নেতাকর্মীরা। রাজধানীসহ আশপাশের জেলার নেতাকর্মীরাও যোগ দেয় সমাবেশে। বেলা বাড়ার সাথে সাথে জনসভা পরিনত হয় জনসমুদ্রে। সমাবেশ শুরু হয় দুপুর দুইটার কিছু পর। দলের চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া কারাগারে থাকায় জনসভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখবেন স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন। জনসভায় সভাপতিত্ব করছেন বিএনপি’র মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেন, রাজনৈতিক শূন্যতা পূরণ করতেই বিএনপি গঠন করেছিলেন জিয়া, বিএনপিকে ভাঙ্গতে নানা ষড়যন্ত্র করছে সরকার, কিন্তু সেটা সম্ভব না।

মওদুদ আহমদ বলেন, আইনিভাবে খালেদা জিয়াকে মুক্ত করা সম্ভব না, একমাত্র পথ হলো রাজপথ।

মির্জা আব্বাস বলেন,ইভিএম হলো টাকা লুটের একটা নতুন প্রজেক্ট।

সমাবেশে নানা ইস্যুতে সরকারের সমালোচনা করেন বিএনপির শীর্ষ নেতারা। পাঁচ জানুয়ারীর মত প্রহসন আর হতে দেবে না জনগন। খালেদা জিয়ার মুক্তি, ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নামে দায়ের মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার ও নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচনের দাবি জানায় সমাবেশের বক্তারা।

১১৯৭৮ সালের এই দিনে বাংলাদেশি জাতীয়তাবাদকে সামনে রেখে তৎকালীন রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান বিএনপি গঠন করেন।









Leave a reply