শহীদ মিনারে গোলাম সারওয়ারকে সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা

|

কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে বরেণ্য সাংবাদিক ও দৈনিক সমকালের সম্পাদক গোলাম সারওয়ারের প্রতি শেষ শ্রদ্ধা জানাচ্ছেন সর্বস্তরের মানুষ। বৃহস্পতিবার সকাল পৌনে ১১টার দিকে লাশবাহী অ্যাম্বুলেন্সে করে তার মরদেহ শহীদ মিনারে নেয়া হয়। সেখানে সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের ব্যবস্থাপনায় সর্বস্তরের মানুষ শেষ শ্রদ্ধা জানান গোলাম সারওয়ারকে।

সকাল সাড়ে ১১টা পর্যন্ত জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী, আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ, তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু, সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর, র‌্যাব মহাপরিচক বেনজির আহমেদসহ, খুশি কবিরসহ বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ সম্পাদক গোলাম সারওয়ারের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।

এর আগে, বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে গোলাম সারওয়ারকে শেষবারের মতো তার কর্মস্থল তেজগাঁওয়ে সমকাল কার্যালয়ে নেওয়া হয়। সেখানে শ্রদ্ধা জানান সহকর্মীরা। আবেগ আপ্লুত হয়ে পড়েন অনেকে। সকাল সোয়া ৯টার দিকে সমকাল কার্যালয়-সংলগ্ন বাংলাদেশ টেক্সটাইল বিশ্ববিদ্যালয়ের ওসমানী হল মাঠে গোলাম সারওয়ারের তৃতীয় জানাজা অনুষ্ঠিত হয়।

এর আগে, গতকাল বরিশালে নিজ গ্রাম বানারিপাড়া আর রাজধানীর উত্তরায় দু’দফা জানাজা হয়। শহীদ মিনার থেকে দুপুর ১টায় গোলাম সারওয়ারের মরদেহ নেওয়া হবে তার পাঁচ দশকের আড্ডাস্থল জাতীয় প্রেস ক্লাবে। সেখানে সহকর্মীরা তাকে শেষ বিদায় জানাবেন। রাষ্ট্রীয়ভাবে সম্মান জানানো হবে একাত্তরের রণাঙ্গনের এই মুক্তিযোদ্ধাকে। জোহরের নামাজের পর তার চতুর্থ জানাজা অনুষ্ঠিত হবে প্রেস ক্লাব চত্বরে। আসরের নামাজের পর মিরপুরের শহীদ বুদ্ধিজীবী কবরস্থানে শেষ শয্যায় শায়িত হবেন তিনি।

গত ২৯ জুলাই অসুস্থ হয়ে রাজধানীর একটি হাসপাতালে ভর্তি হন ৭৫ বছর বয়সী সম্পাদক গোলাম সারওয়ার। অবস্থার অবনতি ঘটলে গত ৩ আগস্ট সিঙ্গাপুর নেওয়া হয় তাকে। গত ১৩ আগস্ট সোমবার বাংলাদেশ সময় রাত ৯টা ২৫ মিনিটে সিঙ্গাপুরের জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ইন্তেকাল করেন একুশে পদকপ্রাপ্ত সাংবাদিক গোলাম সারওয়ার।

যমুনা অনলাইন: টিএফ





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply