ভারতে মুসলিমদের জন্য ধর্ষণ ও হত্যা বাড়ছে: বিজেপি এমপি

|

মুসলিম জনসংখ্যার বৃদ্ধির কারণে ভারতে ধর্ষণ ও হত্যার ঘটনা বেড়ে চলেছে বলে মন্তব্য করেছেন উত্তর প্রদেশের বিজেপির এক শীর্ষ নেতা। হরি ওম পান্ডে নামের এই এমপির দাবি, মুসলমানদের সংখ্যা দ্রুত বৃদ্ধির কারণে ৪৭ সালের ভারত ভাগের ম আবারো নতুন আরেকটি ‘পাকিস্তান’ দাবি করতে পারে তারা।

শুক্রবার উত্তর প্রদেশের স্থানীয় এক টিভি চ্যানেলের সাক্ষাৎকারে আম্বেদকর নগরের সংসদ সদস্য হরি ওম পান্ডে বলেন, সরকার যদি মুসলমানদের জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণ করতে না পারে তাহলে ভারতের ভেতর থেকে উচিরেই পাকিস্তানের মত আরেকটি রাষ্ট্র সৃষ্টি হবে ।

বিজেপির এ নেতা বলেন, মুসলমানদের জনসংখ্যা বৃদ্ধির কারণেই সন্ত্রাসবাদ, ধর্ষণ, যৌন হয়রানি ঘটনাগুলো ঘটছে। খেয়াল করলেই দেখা যাবে, স্বাধীনতার পর থেকে যুগান্তকারীভাবে এ দেশের মুসলমানরা বেড়ে চলেছে। পান্ডে আরও বলেন, এ জনসংখ্যা বৃদ্ধির কারণে বেকারত্ব বাড়ছে, অর্থনীতিতে খারাপ প্রভাব ফেলছে তারা।

মুসলমানদের জন্মনিয়ন্ত্রণ না করার সমালোচনাও করেন তিনি। বিজিপির এ এমপি বলেন, মুসলমানরা কোন প্রকারেরই জন্মনিয়ন্ত্রণে বিশ্বাস করে না। তাদের নেতারা বলেন, তাদের ধর্মে নাকি জন্মনিয়ন্ত্রণ নিষিদ্ধ।

মুসলমানদের জনসংখ্যা বৃদ্ধি রোধে পার্লামেন্টের কঠোর হওয়া উচিত মনে করেন তিনি। সেইসাথে হিন্দুদের জনসংখ্যা বৃদ্ধির ব্যাপারে আহবান জানান পান্ডে।

সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া।









Leave a reply