ফ্লাইট সংকটে পড়বেন চট্টগ্রামের হজ যাত্রীরা

|

চট্টগ্রাম থেকে সৌদি আরবে সরাসরি হজ ফ্লাইট অর্ধেকে নেমে এসেছে। ফলে অনেকের হজ যাত্রা অনিশ্চিত। ফ্লাইট সংখ্যা বাড়াতে নানামুখী চেষ্টা করেও ব্যর্থ হজ এজেন্সিস এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ-হাব। অন্তত ২ হাজার হজযাত্রী দুর্ভোগে পড়বেন বলে শঙ্কা তাদের।

চট্টগ্রাম থেকে এ বছর হজে যাচ্ছেন প্রায় সাড়ে ৯ হাজার জন। কিন্তু ফ্লাইট সংকটে প্রায় ২ হাজার জনের যাত্রা এখনও অনিশ্চিত। গত বছর চট্টগ্রাম শাহ আমানত বিমানবন্দর থেকে সৌদি আরবের উদ্দেশ্যে সরাসরি ১৯ টি ফ্লাইট ছেড়ে গিয়েছিলো, অথচ এবার বরাদ্দ দেয়া হয়েছে মাত্র ৯ টি। ফ্লাইট সংখ্যা বাড়াতে বিভিন্ন সংস্থা ও মন্ত্রণালয়ে ঘোরাঘুরি করেও কোন আশ্বাস না পাওয়ায় ক্ষোভ প্রকাশ করেন হাব নেতারা।

এতে চট্টগ্রামের হাজিরা চরম দুর্ভোগে পড়বেন বলে আশংকা হাব নেতাদের। এছাড়া সময়মতো ফ্লাইট না পাওয়ায় সৌদি আরবে ২০ দিনের জায়গায় হাজিদের ৫০ দিন অবস্থান করতে হতে পারে বলছেন তারা।

এবার প্রতি হাজি বিমান ভাড়া দিচ্ছেন ১ লাখ ৩৮ হাজার টাকা, যা স্বাভাবিক সময়ের প্রায় তিনগুণ। হাব নেতাদের অভিযোগ, হাজিদের নিয়ে বাংলাদেশ বিমান ও সৌদি এয়ারলাইন্স একচেটিয়া ব্যবসা করছে।

চট্টগ্রাম থেকে সরাসরি হজ ফ্লাইট যাত্রা করবে ২২ জুলাই থেকে। তার আগে এসব সমস্যার সমাধান না হলে প্রতিবাদ কর্মসূচি দেয়ার চিন্তা করছে হাব।









Leave a reply