কাতার বিশ্বকাপ সর্বকালের সেরা : ফিফা প্রেসিডেন্ট

|

ছবি: সংগৃহীত

অপ্রত্যাশিত, অনাকাঙ্ক্ষিত, বিস্ময়কর, চমকপ্রদ এমন সব বিশেষণেই বিশেষায়িত করা যায় কাতারে অনুষ্ঠিত বিশ্বকাপের ২২-তম আসরকে। কাতার দেখিয়েছে চমক, এটি ইতিহাসের সেরা বিশ্বকাপ। এমন সার্টিফিকেট দিলেন স্বয়ং ফিফা সভাপতি জিয়ান্নি ইনফান্তিনো। বললেন, এবারের গ্রুপ পর্ব সেরাদের সেরা। যেখানে ছিল না ছোট দল-বড় দল বলে কোনো কথা। দর্শক উপস্থিতিতেও সন্তুষ্ট ফিফা বস।

কাতার বিশ্বকাপ শুরুর আগেই ফিফা সভাপতি ইনফান্তিনো বলেছিলেন, এবারের আসর সর্বকালের সেরা বিশ্বকাপ হবে। মাঝপথে এসে সে কথারই পুনরাবৃত্তি করলেন ফিফা বস।

শুধু কাতারের অভিনব আয়োজনই নয়, ৩২ দলের জমজমাট লড়াই, চমকপ্রদ সব ফলাফল মিলে এবারের আসর হয়ে উঠেছে অন্য যেকোনোবারের তুলনায় সেরা। ইনফান্তিনোর মতে, এবার বড় দল-ছোট দল বলে কিছু নেই। কারণ কাগজে-কলমে পিছিয়ে থাকা অনেকেই হারিয়েছে হেভিওয়েটদের।

সম্প্রতি গণমাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে ফিফা সভাপতি জিয়ান্নি ইনফান্তিনো বলেন, আমি এবারের প্রত্যেকটি ম্যাচ দেখেছি। আমার মতে এবারের গ্রুপ পর্ব অন্য যে কোন বারের চেয়ে সেরা। এমন অপ্রত্যাশিত ম্যাচ হয়তো কেউই বুঝে উঠতে পারেনি। এবারের আসরে ছোট দল বড় দল বলে কিছুই নেই। এখন আমরা কোয়ার্টার ফাইনালে চলে এসেছি। এখন তারকা ফুটবলারদের সময় ম্যাচে নিজের দেশের জন্য ব্যবধান তৈরী করে দেয়া।

এবারের দর্শক উপস্থিতি নিয়েও খুবই সন্তুষ্ট ফিফা সভাপতি। স্টেডিয়ামে গড়ে ৫১ হাজার দর্শক গ্যালারিতে বসে সরাসরি উপভোগ করেছে খেলা। সেইসাথে প্রায় ২৫ লাখ মানুষ দোহার অলিতে গলিতে খেলা দেখছে। টেলিভিশন-অনলাইনেও কোটি কোটি দর্শক সরাসরি উপভোগ করেছে বিশ্বকাপ। এই পরিসংখ্যানে ফিফা বস মনে করেন, ফুটবল একটি বৈশ্বিক খেলা।

কাতারের নান্দনিক স্টেডিয়াম ও দর্শকদের উদ্দেশে ফিফা সভাপতি জিয়ান্নি ইনফান্তিনো বলেন, আমরা তো আসরের আগে থেকেই জানতাম, কাতারের স্টেডিয়াম গুলো আসরের অন্যতম আকর্ষণ হয়ে থাকবে। তবে এবারে স্টেডিয়ামে দর্শক উপস্থিতি ও বিশ্বকাপকে ঘিরে মানুষের উন্মাদনা এইটাই প্রমাণ করছে যে, যত দিন যাচ্ছে ফুটবল সারা বিশ্বে পৌছে যাচ্ছে। আর ফিফার সভাপতি হিসাবে এটা আমার জন্য খুবই গর্বের।

/আরআইএম





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply