দিল্লিতে বাংলাদেশ ও ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সৌজন্য সাক্ষাৎ

|

ভারতের দিল্লিতে তাজ প্যালেসে সৌজন্য সাক্ষাতে মিলিত হয়েছেন বাংলাদেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান এমপি ও ভারতের কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ।

সৌজন্য সাক্ষাতে বাংলাদেশ ভারতের সীমান্ত ব্যবস্থাপনা, সীমান্ত নিরাপত্তাসহ পারষ্পরিক স্বার্থসংশ্লিষ্ট বিবিধ বিষয়ে আলোচনা হয়। সীমান্তে হত্যা শূন্যে নিয়ে আসার লক্ষে আলোচনা হয় তাদের মধ্যে।

জোরপূর্বক বাস্তুচ্যূত মিয়ানমার নাগরিকদের তাদের নিজ দেশে ফেরত পাঠানোর ক্ষেত্রে সবধরনের সহযোগিতা থাকবে বলে আশ্বাস দিয়েছে ভারত।

১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধে বাংলাদেশের সঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে যুদ্ধ করেছিল ভারত। ঠিক তেমনি ভবিষ্যতে যেকোনো প্রয়োজনে পারষ্পরিক সহযোগিতার মাধ্যমে পাশে থাকবে দুই দেশ বলে জানানো হয়েছে।

উল্লেখ্য, ভারতের দিল্লিতে অনুষ্ঠিত দুইদিনব্যাপী (১৮-১৯ নভেম্বর) ‘নো ক্যাশ ফর ফিয়ার’ (এনএমএফটি) এ অংশ নিচ্ছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান।

সৌজন্য সাক্ষাতের সময় বাংলাদেশের পক্ষে আরও উপস্থিত ছিলেন, ভারতে নিযুক্ত বাংলাদেশের হাইকমিশনার জনাব মো. মোস্তাফিজুর রহমান, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা বিভাগের যুগ্মসচিব জনাব আবু হেনা মোস্তফা জামান, উপ হাইকমিশনার মো. নুরল ইসলাম, মিনিস্টার (কনস্যুলার) সেলিম মো. জাহাঙ্গীর ও ভারতের নয়াদিল্লিতে অবস্থিত বাংলাদেশ হাইকমিশনের কর্মকর্তাবৃন্দ।

/এনএএস





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply