ক্ষমাপ্রার্থী ইলন মাস্ক

|

টুইটারে ভুয়া অ্যাকাউন্টের সংখ্যা অনেক। এসব অ্যাকাউন্টের মধ্যে অনেকগুলোতে আছে ভেরিফায়েড ব্লু টিকও। সম্প্রতি যিশু খ্রিস্টশয়তানের ছবি ও নামযুক্ত দুটি অ্যাকাউন্ট ভেরিফায়েড হওয়া নিয়ে হৈচৈ পড়ে যায় সোশ্যাল মিডিয়ায়। এ নিয়ে পৃথক দুটি প্রতিবেদনও প্রকাশ করেছে যমুনা টেলিভিশন। এতো কিছুর পর এবার ফেক অ্যাকাউন্ট নিয়ে টনক নড়েছে টুইটার কর্তৃপক্ষের। নিজেই টুইট করে এ নিয়ে ব্যবস্থা নেয়ার আশ্বাস দিয়েছেন ইলন মাস্ক। সেই সাথে টুইটারের গতি কমে যাওয়ায় ক্ষমাও চেয়েছেন তিনি। খবর খবর ইন্ডিয়া টুডের।

রোববার (১৩ নভেম্বর) টুইট করে ইলন বলেন, টুইটারে ভুয়া অ্যাকাউন্ট কমানোর জন্য সচেষ্ট আমরা। এসব অ্যাকাউন্টগুলো শনাক্ত করে জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিচ্ছি। সেই সাথে বেশ কয়েকটি দেশে টুইটারের গতি কম হওয়া নিয়েও ক্ষমা চেয়েছেন ইলন। সমস্যা সমাধানে কাজ চলছে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

প্রসঙ্গত, টুইটারের মালিকানা ইলন মাস্কের হাতে যাওয়ার পর থেকেই একের পর এক বিতর্ক শুরু হয়েছে। কর্মী ছাঁটাই থেকে শুরু করে নতুন করে নেয়া বিভিন্ন সিদ্ধান্ত একদিকে যেমন সৃষ্টি করেছে বিতর্ক, অন্যদিকে প্রতিনিয়ত টুইটার নিয়ে নেতিবাচক প্রভাব পড়ছে বিনিয়োগকারীদের মধ্যেও। ফলে আর্থিকভাবে বেশ টালমাটাল অবস্থা এ সোশ্যাল মিডিয়া জায়ান্টের। শোনা যাচ্ছে, টুইটার দেউলিয়া হয়ে যেতে পারে বলে কর্মীদের ইঙ্গিত দিয়েছেন ইলন। এসব নিয়ে ইলন মাস্ককে সতর্কও করেছে মার্কিন বাজার নিয়ন্ত্রক সংস্থা।

এসজেড/





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply