শীতে খুশকি থেকে রক্ষা পাবেন যেভাবে

|

ছবি: সংগৃহীত

প্রকৃতিতে শীতের হাওয়া লেগেছে। এই সময়ে ত্বকের বিশেষ যত্ন নিতে হয়। চুলেরও আলাদা করে যত্ন নিতে হয়। নইলে ত্বক রুক্ষ হয়ে যাওয়ার পাশাপাশি চুলেও খুশকি দেখা দেয়।

শীতকালের শুষ্ক আবহাওয়ার কারণেই চুলে খুশকির সমস্যা দেখা দেয়। পাশাপাশি অতিরিক্ত দূষণের ফলেও মোটামুটি সারা বছর এ সমস্যা লেগেই থাকে।

ঘরোয়া কিছু উপায় অবলম্বন করে খুশকির সমস্যার সমাধান করা যায়। এগুলোর খরচও কম। পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া নেই বললেই চলে। আসুন জেনে নিই চিকিৎসা ছাড়াই খুশকির সমস্যার সমাধান করার কয়েকটি উপায়।

টকদই

খুশকির সমস্যা থেকে বাঁচতে টকদই খুব কার্যকরী। খুশকি দূর করতে টকদই মাথার ত্বকে ভালোভাবে ম্যাসাজ করুন। ১০ মিনিট রেখে ভালো করে ধুয়ে ফেলুন। খুশকির সমস্যা পুরোপুরি দূর না হওয়া পর্যন্ত সপ্তাহে দু’বার এভাবে চুলে টকদই ব্যবহার করা যেতে পারে।

লেবুর রস

দুই টেবিল-চামচ লেবুর রস অল্প পানির সাথে মিশিয়ে মাথায় ভালো করে ম্যাসাজ করুন। ২-৫ মিনিট ম্যাসাজ করার পর চুল ধুয়ে নিন। খুশকির সমস্যা পুরোপুরি দূর না হওয়া পর্যন্ত সপ্তাহে দু’বার এভাবে চুলে লেবু ব্যবহার করা যাবে।

পেঁয়াজের রস

খুশকি দূর করার অনন্য উপাদান পেঁয়াজের রস। দু’টি পেঁয়াজ ভালো করে বেটে এক মগ পানিতে মিশিয়ে নিন। মাথায় এই পেঁয়াজের রস ভালো করে লাগিয়ে মালিশ করুন। কিছুক্ষণ পর হালকা গরম পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এভাবে সপ্তাহে দু’বার পেঁয়াজের রস মাথায় মাখলে খুশকির সমস্যায় দ্রুত উপকার পাবেন।

মেথি

মেথি সারারাত পানিতে ভিজিয়ে রেখে সকালে ছেঁকে নিয়ে ভালো করে বেটে নিন। ছেঁকে নেয়া পানি ফেলে দেবেন না। এবার বেটে নেয়া মেথি চুলের গোঁড়ায় মাথার ত্বকে ভালো করে লাগিয়ে নিন। ঘণ্টাখানেক রেখে চুল ভালো করে ধুয়ে ফেলুন। চুল ধোয়ার পর মেথি ভিজিয়ে রাখা পানি দিয়ে আরও একবার চুল ধুয়ে নিন।

/এনএএস





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply