ইউক্রেনের সহায়তায় এগিয়ে এলেন চিত্রশিল্পী, ছবি এঁকে সংগ্রহ করছেন অর্থ

|

যুদ্ধ বিধ্বস্ত ইউক্রেনকে সহায়তায় এগিয়ে এলেন যুক্তরাষ্ট্রের এক চিত্রশিল্পী। রঙ তুলির আচড়ে বাড়িয়ে দিয়েছেন সাহায্যের হাত। ইরপিন শহরে ছবি এঁকে অর্থ সংগ্রহের উদ্যোগ নিয়েছেন। ছবি আঁকতে ক্যানভাস হিসেবে বেছে নিয়েছেন রুশ হামলায় ক্ষতিগ্রস্ত অসংখ্য ভাঙ্গাচোরা গাড়ি। তার সাথে যোগ দিয়েছেন স্থানীয় শিল্পীরাও। খবর এপির।

ভাঙ্গাচোরা আর পোড়া এই গাড়িগুলোই হয়ে উঠেছে শিল্পীর ক্যানভাস। রঙ তুলির ছোঁয়ায় ধ্বংসস্তূপের মাঝে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে অসংখ্য সূর্যমুখী ফুল। এই চিত্র ইউক্রেনের ইরপিন শহরে।

প্রায় তিন সপ্তাহ রাশিয়ার দখলে ছিলো ইরপিন। এ শহরে ধ্বংসযজ্ঞ চালিয়েছে রুশ বাহিনী। স্থানীয় প্রশাসনের তথ্যমতে, ধ্বংস হয়েছে ইরপিন শহরের একশটিরও বেশি ভবন, নিহত হয়েছে অন্তত ২৬৯ জন বাসিন্দা।

ধ্বংসস্তূপে পরিণত হওয়া ইরপিনকে রঙ তুলির ছোঁয়ায় সাজাতে সুদূর লস অ্যাঞ্জেলস থেকে এসেছেন এক চিত্রশিল্পী। গণমাধ্যমে রুশ বাহিনীর ধ্বংসযজ্ঞ দেখে ইউক্রেনীয়দের পাঁশে দাঁড়াতে এসেছেন থান্ডার কেলি নামের এই শিল্পী।

এ বিষয়ে শিল্পী ট্রেক থান্ডার কেলি বলেন, আমি লস অ্যাঞ্জেলসের একজন শিল্পী। ইউক্রেনের বুশা শহরে রুশ বাহিনীর তাণ্ডব আমি মিডিয়াতে দেখেছি। এটা আমাকে প্রভাবিত করেছে। তাই, আমার যে কাজে দক্ষতা রয়েছে তা দিয়ে এগিয়ে আসতে চেয়েছি।

তিনি আরও বলেন, ধ্বংসাবশেষের মধ্যেও সুন্দর কিছু থাকে- এটা একজন শিল্পীই অনুভব করতে পারে। আমরা সেই সৌন্দর্য ফুটিয়ে তোলার চেষ্টা করছি। আমরা মূলত ইউক্রেনীয় শিল্পীদের জন্য অর্থ সংগ্রহ করছি। যাতে তারা এই শহরে বিভিন্ন গ্রামের দেয়ালে ছবি আঁকতে পারে। সেই ছবি প্রদর্শনের মাধ্যমে তারাও অর্থ সংগ্রহ করবে। পরে তা বিভিন্ন মানবিক কাজে ব্যবহার করা হবে।

কেলির সাথে এ শিল্পকর্মে যোগ দিয়েছেন স্থানীয়রাও। ইউক্রেনীয়দের প্রতীক ভাবা হয় সূর্যমুখী ফুলকে। তাই তুলির আঁচরে ফুটে উঠেছে সেই ফুলই। তাদের এ প্রকল্পের নাম দেয়া হয়েছে ‘ফ্লাওয়ারস ফর হোপ’। এর মাধ্যমে যুদ্ধ বিধ্বস্ত ইউক্রেনের সহায়তায় অর্থ সংগ্রহ করা হবে।

এটিএম/





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply