ঘরে বসে স্বাস্থ্যসেবা পাচ্ছে গ্রামীণ জনগোষ্ঠী: প্রধানমন্ত্রী

|

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ফাইল ছবি।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, শিশু ও মাতৃমৃত্যুর হার কমেছে। গ্রামীণ জনগোষ্ঠী ঘরে বসে স্বাস্থ্যসেবা পাচ্ছে। জনগণের দোরগোড়ায় স্বাস্থ্যসেবা পৌঁছে দেয়াই সরকারের লক্ষ্য।

বুধবার (১৪ সেপ্টেম্বর) বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে সুপার স্পেশালাইজড হাসপাতালের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন তিনি।

শেখ হাসিনা বলেন, স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিতে সরকারের নেয়া উদ্যোগের সুফল পাচ্ছে দেশের মানুষ। স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিতে বেসরকারি খাতে হাসপাতাল ও মেডিকেল কলেজের অনুমোদন দিয়েছে সরকার। বেসরকারি খাতে স্বাস্থ্য সেবার মান যাতে বাড়ে সেই ব্যবস্থা নিতে হবে।

মাঠ পর্যায়ে এখনও চিকিৎসক-নার্সের অভাব দেখা যায় উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, অনেকেই যেতে চান না। সবাইকে রাজধানীতেই থাকবে হবে এমন নয়। মানবিক দৃষ্টিকোণ থেকে বিষয়টি চিকিৎসকদের দেখার অনুরোধ করছি। যেন উপজেলা পর্যন্ত মানুষ চিকিৎসা সেবা পায়। এসময় অনলাইনে চিকিৎসা সেবা দেয়ার অনুরোধ জানান তিনি।

চিকিৎসকদের উদ্দেশে শেখ হাসিনা বলেন, মনে রাখতে হবে, সাধারণ মানুষ সরকারি হাসপাতালে খুব অল্প খরচে চিকিৎসা নিতে আসে। তারা যাতে উন্নত চিকিৎসা পায়, সেদিকে দৃষ্টি দিতে হবে।

বিশ্বের অনেক প্রতিষ্ঠিত অভিজ্ঞ চিকিৎসকদের বাংলাদেশে আসার সুযোগ করে দিতে হবে বলে মন্তব্য করেন প্রধানমন্ত্রী। বলেন, এ বিষয়ে আমাদের ডাক্তারদের উদার হতে হবে। দরজা বন্ধ করে রাখলে আলো-বাতাস ঢোকে না। এ বিষয়ে বিশেষভাবে ভাববেন।

চিকিৎসা খাতে গবেষণা এখনও অপ্রতূল উল্লেখ করে তিনি বলেন, গবেষণায় আরও গুরুত্ব দিতে হবে। শুধু চিকিৎসা দিলেই চলবে না। গবেষণা ছাড়া চিকিৎসায় উৎকর্ষ সাধন সম্ভব না। এ সুপার স্পেশালাইজড হাসপাতালের মাধ্যমে চিকিৎসা গবেষণায় নতুন দিগন্তের উন্মোচন হবে বলে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

/এমএন





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply