মাদক কেনার টাকার জন্য ছুরিকাঘাতে বাবাকে খুন!

|

ফরিদপুর প্রতিনিধি
ফরিদপুরের ভাঙ্গায় মাদকাসক্ত ছেলের হাতে খুন হয়েছে বাবা। নির্মমভাবে হত্যার শিকার বাবার নাম আক্কাচ শিকদার (৫৫)। আর মাদকাসক্ত হত্যাকারী ছেলের নাম শাহ আলম শিকদার (১৭)। সোমবার দিবাগত রাতে  উপজেলার আজিমনগর ইউনিয়নের ব্রাহ্মণপাড়া গ্রামে এই ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে পুলিশ পৌঁছে লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। আজ মঙ্গলবার সকালে লাশ ময়নাতদন্তের জন্য ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠায় পুলিশ।

এই ঘটনায় ভাঙ্গা থানায় একটি মামলা দায়ের করেছে নিহতের স্ত্রী জেয়াসমিন আক্তার। তিনি জানান, আমার স্বামীর তিন বিয়ে, আমি তার ছোট স্ত্রী। স্বামীর আগের স্ত্রী মুক্তি বেগমের ছেলে শাহআলম শিকদার মাদকের টাকার জন্য প্রায়ই তাকে বিভিন্ন ভাবে নির্যাতন করত। এছাড়াও পারিবারিক কলহ নিয়ে ঝগড়া বিবাদ ছিল পিতা-পুত্রের মধ্যে।

সোমবার রাতে আমার স্বামী কাবতলী বাজারে তার মুদি দোকানে বসে ছিল। সে সময় মাদকাসক্ত শাহআলম শিকদার তার কাছে টাকা-পয়সা চায়, তা নিয়ে বাকবিতন্ডা হয় দুজনের মধ্যে। এক পর্যায়ে শাহ আলম চাকু দিয়ে বাবাকে একাধিকবার আঘাত করে। এতে ঘটনাস্থলেই মারা যায় আক্কাচ। আমি আমার স্বামীর নির্মম হত্যার বিচার চাই।

থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মিরাজ হোসেন (তদন্ত) জানায়, কাবতলী বাজারে মুদি দোকানে মাদকাসক্ত ছেলের হাতে বাবা খুন হয়েছে, এমন খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে সত্যতা পাই। আক্কাচ শিকদারকে হত্যার সময় তার ভাতিজা পল্লী চিকিৎসক আয়নাল শিকদার এগিয়ে আসলে তাকেও চাকু দিয়ে কোপ দিয়ে পালিয়ে যায় শাহ আলম শিকদার।

এ ব্যাপারে পরিবারের পক্ষ থেকে থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে জানিয়ে এই কর্মকর্তা বলেন হত্যাকারীকে ধরতে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।









Leave a reply