নেত্রকোণায় ছুরিকাঘাতে যুবক খুন, তিন নারী আটক

|

কামাল হোসাইন, নেত্রকোণা

নেত্রকোণা সদর উপজেলায় জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে প্রতিপক্ষের লোকজন এক যুবককে ছুরিকাঘাতে হত্যা করেছে বলে অভিযোগ ওঠেছে। এ ঘটনায় পুলিশ তিন নারীকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করেছে।

নিহত যুবক উপজেলার মৌগাতি ইউনিয়নের বাদেবহর গ্রামের মৃত আবুল মনসুর গোপাল মিয়ার ছেলে হারেছ মিয়া (৩৩)।

তদন্তের স্বার্থে জিজ্ঞাসাবাদের জন্যে আটক নারীদের নাম জানায়নি পুলিশ। পুলিশ জানায়, রোববার ভোরে গ্রামের ফোটাবিল থেকে হারেছ মিয়ার লাশ ও হত্যায় ব্যবহৃত ছুরি এবং একটি মুঠোফোন উদ্ধার করা হয়েছে।

নেত্রকোণা মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কমকতা বোরহান উদ্দিন খান জানান, গ্রামেরই দুই ব্যক্তির সঙ্গে জমি নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল হারেছ মিয়ার। ধারণা করা হচ্ছে এরই জের ধরে আজ ভোরে গ্রামের সড়ক থেকে দুর্বৃত্তরা হারেছকে তুলে নিয়ে গ্রামের পাশের ফোটাবিলের পতিত জমিতে হত্যা করে ফেলে রাখে। পরে স্বজনেরা খোঁজাখুজি করে ফোটাবিলের জমিতে হারেছ মিয়ার লাশ পড়ে থাকতে দেখে পুলিশে খবর দেয়। সকাল ছয়টার দিকে পুলিশ এসে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নেত্রকোণা আধুনিক সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়। এ ঘটনায় তিন নারীকে আটক করা হয়েছে। মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলেও জানায় পুলিশ।









Leave a reply