প্রধানমন্ত্রীকে হত্যার চক্রান্ত হচ্ছে, দলের লোকজনও জড়িত: আবুল কালাম আজাদ

|

সাবেক তথ্যমন্ত্রী আবুল কালাম আজাদ। ছবি: সংগৃহীত

স্বাধীনতা বিরোধী শক্তির সাথে সরকার পক্ষের অনেকে আঁতাত করছে। এই আঁতাতের অংশ হিসেবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে হত্যার চক্রান্ত হচ্ছে বলে অভিযোগ করেন সাবেক তথ্যমন্ত্রী আবুল কালাম আজাদ। তিনি বলেন, অর্থের বিনিময়ে এই আঁতাতের কথা গোয়েন্দা তথ্যেও আসে না। এজন্য প্রধানমন্ত্রীকে সজাগ থাকার আহ্বান জানান তিনি।

বুধবার (৩১ আগস্ট) জাতীয় সংসদে সরকারি দলের সদস্য ওবায়দুল মোক্তাদির চৌধুরী আনিত প্রস্তাবের ওপর আলোচনায় সাবেক তথ্যমন্ত্রী আবুল কালাম আজাদ এসব কথা বলেন। প্রস্তাবে বলা হয়, বঙ্গবন্ধু সপরিবারে নিহত হলেও ষড়যন্ত্রকারীরা এখনও ক্ষান্ত হয়নি। আবারও ক্ষমতায় এসে তারা ইতিহাস মুছে ফেলতে চায়। আলোচনায় সংসদ সদস্যরা বলেন, ৭৫ এর খুনিদের জন্য কোনো করুণা নেই। জাতির এই লজ্জা কখনও মুছে ফেলার নয়। পেছনে থেকে যারা কলকাঠি নেড়েছেন তাদের কোনোভাবেই ক্ষমার সুযোগ নেই। হত্যাকাণ্ডে জিয়াউর রহমান জড়িত ছিলেন বলেও দাবি করেন কেউ কেউ।

সংসদে আবুল কালাম আজাদ বলেন,  প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে হত্যার চক্রান্ত হচ্ছে। এই ষড়যন্ত্রের সঙ্গে সরকারি দলের লোকজনও জড়িত। কী ধরনের ষড়যন্ত্র চলছে, তা আমি সংসদে বিস্তারিত বলতে পারছি না। প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে একান্তে কথা বলতে পারলে তাকে বলতে পারতাম। ডিজিএফআই, এনএসআই, ডিবিসহ গোয়েন্দা সংস্থাগুলো অনেক সময় সঠিক তথ্য দেয় না। তিনি প্রধানমন্ত্রীকে নিজস্ব প্রক্রিয়ায় তথ্য সংগ্রহ করে ষড়যন্ত্র প্রতিহত করা এবং জেলা উপজেলায় যারা কাজ করছে, তাদের দিকে খেয়াল রাখারও পরামর্শ দেন।

আরও পড়ুন: বঙ্গবন্ধু হত্যার ষড়যন্ত্রকারীদের চিহ্নিত করতে ডিসেম্বরে কমিশন গঠন: আইনমন্ত্রী

/এম ই





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply