‘খালেদা জিয়া ৫/৬ মিনিট অজ্ঞান ছিলেন’

|

বারবার সুপারিশ করা হলেও সরকার খালেদা জিয়ার চিকিৎসার বিষয়টি উপেক্ষা করছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রিজভী আহমেদ। আজ সকালে নয়াপল্টনের দলীয় কার্যালয়ে ব্রিফিংয়ে এ অভিযোগ করেন তিনি।

রিজভী বলেন, কারাগারে খালেদা জিয়ার মৌলিক অধিকার লঙ্ঘন হচ্ছে। কারাগারে সাক্ষাৎ করে আসা স্বজনদের বরাতে বিএনপি নেতা জানান, সম্প্রতি কারাগারের ভেতরে ৫/৬ মিনিট অজ্ঞান হয়েছিলেন অসুস্থ খালেদা জিয়া।

তিনি অভিযোগ করেন, খালেদা জিয়ার অজ্ঞান হবার খবর কারাকর্তৃপক্ষ জানেনা, এতেই প্রমাণ হয় সরকার তার চিকিৎসা নিয়ে কতটুকু ভাবছে। কারাকর্তৃপক্ষের অবহেলার শিকার তিনি।

বিএনপি চেয়ারপারসনকে অসুস্থ করে সরকার নির্বাচন থেকে দূরে রাখার ষড়যন্ত্র করছে উল্লেখ করে রিজভী আহমেদ বলেন, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর গতকালের বক্তব্যে বোঝা যায়, খালেদা জিয়ার চিকিৎসা নিয়ে সরকার কতটা উদাসীন। তার বক্তব্যে মৌলিক অধিকার হরণের দৃশ্য স্পষ্ট।

খালেদা জিয়াকে মুক্তি না দিলে বিএনপি তীব্র আন্দোলনে রাজপথে নামবে বলে জানান রিজভী আহমেদ।

এদিকে অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম বলেছেন, খালেদা জিয়ার অসুস্থতা নিয়ে মিথ্যাচার ও বিভ্রান্তি তৈরি করছেন তার আইনজীবীরা। তিনি অজ্ঞানও হননি।

অ্যাটর্নি জেনারেল আরও বলেন, মাইল্ড স্ট্রোক নয়, বেগম জিয়ার সুগার লেভেল কমে যাওয়ায় একটু মাথা ঘুরেছিলো।









Leave a reply