পদ্মায় ডুবে মাদ্রাসাছাত্রের মৃত্যু, নিখোঁজ আরও একজন

|

প্রতীকী ছবি

স্টাফ রিপোর্টার, মাদারীপুর:

মাদারীপুরের শিবচরে পদ্মা নদীতে গোসল করতে নেমে পানিতে ডুবে সমবয়সী ২ শিশু নিখোঁজ হয়। পরে এক শিশুর লাশ উদ্ধার করা হলেও এখনও এক শিশু নিখোঁজ রয়েছে।

শিবচর নৌ পুলিশ ফাঁড়ি সূত্রে জানা গেছে, বৃহস্পতিবার (১১ আগস্ট) দুপুরে উপজেলার কাঁঠালবাড়ি চরচান্দ্রা এলাকায় পদ্মা নদীতে আরাফাত (১০) ও আব্দুর রহিমসহ (১০) সমবয়সী ৭ জন শিশু একত্রে গোসল করতে নামে। এ সময় স্রোতের টানে আরাফাত ও আব্দুর রহিম পানিতে ডুবে নিখোঁজ হয়।

অন্য ৫ শিশু সাঁতরে তীরে উঠার পর বিষয়টি জানায়। পরে, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে নৌ পুলিশ গিয়ে স্থানীয় ডুবুরি দিয়ে তল্লাশি শুরু করে। কয়েক ঘণ্টা চেষ্টার পর সন্ধায় পদ্মা নদী থেকে আরাফাতের লাশ উদ্ধার করে। রাত ৮টা পর্যন্ত উদ্ধার কার্যক্রম চলমান থাকলেও শিশু আব্দুর রহিমের লাশ উদ্ধার করা যায়নি। নিহত আরাফাত চরচান্দ্রা এলাকার রহিম হাওলাদারের ছেলে। আর নিখোঁজ আব্দুর রহিম একই গ্রামের আবুল মাদবরের ছেলে বলে পুলিশ জানিয়েছে। তারা উভয়ই চরচান্দ্রা এলাকার একটি মাদ্রাসার ছাত্র।

এদিকে স্থানীয় একটি সূত্র জানিয়েছে, গোসল করতে গিয়ে পাড়ে ভেড়ানো বাল্কহেড থেকে শিশুরা লাফিয়ে পানিতে পড়ছিল। এ সময় হয়ত স্রোতের টানে দুই শিশু বাল্কহেডের নিচে চলে যাওয়ায় আর উঠতে পারেনি।

চরজানাজাত নৌপুলিশ ফাঁড়ির ওসি মো.শাহানুর আলী বলেন, খবর পেয়ে স্থানীয় ডুবুরিদের সহায়তায় তল্লাশি চালিয়ে পদ্মা নদী থেকে এক শিশুর মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। এখনও এক শিশু নিঁখোজ রয়েছে। আগামীকাল আবারও উদ্ধার কার্যক্রম চলবে।

জেডআই/





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply