দরজা ভেঙে দশম শ্রেনির ছাত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টা

|

পাবনা প্রতিনিধি

বেড়া উপজেলার চাকলা গ্রামে দশম শ্রেনির ছাত্রীকে জোড়পূর্বক ধর্ষণের চেষ্টা করা হয়েছে। এ অভিযোগে বেড়া মডেল থানায় ২ জনের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি মামলা হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে গত বুধবার (৬ জুন) মধ্য রাতে।

থানা সূত্রে জানা যায়, ওই ছাত্রীর বাবা বুধবার আত্মীয় বাড়িতে বেড়া যায়। বাবা ফিরে না আসায় মেয়েটি একাই ঘরে ঘুমিয়ে পড়ে। এই সুযোগে একই গ্রামের আবুল কাশেম ভোলার ছেলে উজ্জল (২৮) এক সঙ্গী নিয়ে মেয়েটির শয়ন ঘরের দরজা ভেঙে কক্ষে প্রবেশ করে জোড় পূর্বক ধর্ষণের চেষ্টা করে। এ সময় তার চিৎকার শুনে গ্রামে পাহারারত চাকলা ইউনিয়ন পরিষদের দুই চৌকিদার এগিয়ে আসলে উজ্জল ও তার সঙ্গী দৌড়ে পালিয়ে যায়। পরের দিন বৃহস্পতিবার মেয়েটির বাবা-মা বাড়ীতে এলে সে তাদের ঘটনা খুলে বলে।

ওই দিনই মেয়েটির মা বাদী হয়ে বেড়া মডেল থানা ২ জনের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দয়ের করেন।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা এস আই বারেক জানান, আসামিদের গ্রেফতারের সোর্স লাগানো হয়েছে।









Leave a reply