রূপচর্চায় আপেলের ব্যবহার

|

ছবি: সংগৃহীত

মিষ্টি ফল হিসেবে আপেল পরিচিত। এটি পুষ্টিগুণে ভরপুর। তাই স্বাস্থ্যের জন্য বেশ উপকারী। শুধু তাই নয়, এটি আমাদের ত্বকের যত্নেও সমান কার্যকর। আপেলের তৈরি ফেসপ্যাক ব্যবহারে ত্বক হয়ে উঠবে উজ্জ্বল ও কোমল। চলুন জেনে নেই সেরকমই কিছু ফেসপ্যাকের কথা।

ত্বকের যত্নে আপেল যেভাবে ব্যবহার করবেন:

* ত্বকের ক্লান্তি দূর করতে খোসাসহ একটি আপেল কেটে ব্লেন্ডারে দিয়ে দিন। সামান্য পানি দিয়ে মিহি পেস্ট তৈরি করুন। এটি ত্বকের লাগলে ত্বকের ক্লান্তিভাব দূর হয়।

* ডার্ক সার্কেল দূর করতে এক টেবিল চামচ আপেলের রসের সঙ্গে কয়েক ফোঁটা আলমন্ড অয়েল মিশিয়ে নিন। মিশ্রণটি চোখের আশেপাশে কিছুক্ষণ লাগিয়ে রেখে তুলা ভিজিয়ে পরিষ্কার করে ফেলুন। এই মিশ্রণ ফ্রিজে সংরক্ষণ করেও ব্যবহার করা যায়। এটি নিয়মিত লাগালে দূর হবে ডার্ক সার্কেল।

* ত্বকের নির্জীব ভাব কাটাতে আপেলের পেস্ট ত্বকে লাগিয়ে রাখুন ১৫ মিনিট। ঠাণ্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

* কয়েক ফোঁটা আপেল সিডার ভিনেগারে তুলা ভিজিয়ে ত্বকে লাগাতে পারেন। চমৎকার প্রাকৃতিক টোনার হিসেবে কাজ করবে এটি।

* আপেলে রয়েছে ট্যানিক অ্যাসিড যা ত্বক উজ্জ্বল ও মসৃণ করে। একটি আপেলের খোসা বেঁটে পেস্ট তৈরি করুন। এক চা চামচ মধু মিশিয়ে পেস্ট লাগান ত্বকে। ১৫ মিনিট পর কুসুম গরম পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

* একটি আপেল থেকে রস সংগ্রহ করুন। আপেলের রসের সঙ্গে এক চা চামচ মধু ও আধা চা চামচ লেবুর রস মিশিয়ে নিন। মিশ্রণটি ত্বকে ২০ মিনিট লাগিয়ে রেখে ঠান্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে দুইবার এই ফেসপ্যাকটি ব্যবহার করলে ব্রণ দূর হবে।

* ১টি আপেল ছেঁচে এক চা চামচ ওটমিল গুঁড়া মেশান। এক চা চামচ মধু ও ১টি ডিমের কুসুম মিশিয়ে ত্বকে লাগান। ১০ মিনিট অপেক্ষা করে ঠান্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এটি ত্বকের রুক্ষতা দূর করবে।

ইউএইচ/





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply