আজ রাতে রোনালদো-সালাহ ‘মহারণ’

|

উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালে আজ রাতে মুখোমুখি হচ্ছে দুই উইরোপিয়ার পরাশক্তি রিয়াল মাদ্রিদ ও লিভারপুল। ইউক্রেনের রাজধানি কিয়েভে ম্যাচটি শুরু হবে রাত পৌনে একটায়। সরাসরি সম্প্রচার দেখতে পাবেন সনি টেন টু’তে।

দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের রনক্ষেত্র কিয়েভের অলিম্পিক স্টেডিয়ামে এবার অপেক্ষা ফুটবল যুদ্ধের। ইউরোপ সেরার মুকুট পড়ার রড়াইয়ে মাঠে নামছে দুই পরাশক্তি বর্তমান চ্যাম্পিয়ন রিয়াল মাদ্রিদ ও লিভারপুল।

সারা বিশ্বের কোটি ফুটবল প্রেমির চোখ আটকে থাকবে কিয়েভে। রিয়ালের রেকর্ড হ্যাটট্রিক শিরোপা নাকি ১৩ বছর পর আবারো সেরার মসনদে বসবে লিভারপুল?

কঠিন সেই লড়াইয়ে পূর্ন শক্তি দল পাচ্ছে রিয়াল মাদ্রিদ কোচ জিনেদিন জিদান। তাইতো একাদশ গড়া নিয়ে মধুর সমস্যায় গ্যালাকটিকো বস। তবে কেই নাভাস, কারভাহাল, ভারান, রামোস, মার্সেলো, ক্যাসিমিরো, মড্রিচ, ক্রস, ইসকো ও রোনালদোর খেলাটা প্রায় নিশ্চিত। শেষ পজিশনে লড়াইয়ে দুজন থাকলেও ফর্মের বিচারে বেনজিমার চেয়ে এগিয়ে থাকার কথা গ্যারেথ বেলের।

তবে পূর্ন শক্তির দল পাচ্ছেন না অলরেড বস ক্লপ। চেম্বারলিনের সাথে চোট আছে মেটিপ ও গোমেজের। পিঠের ব্যথায় অনিশ্চিত এমরি চান। কিন্তু তারপরও গোলরক্ষক কেরিয়াস, অ্যালেক্সজেন্ডার আরনল্ড, ড্যান ডাইক, লেভরেন, রবার্টসন, হ্যান্ডারসন, মিলনার, ওয়াইনালডাম, সালাহ, মানে ও ফিরমিনিয়োকে নিয়ে ভয় জাগানিয়া দল লিভারপুল।

গ্রান্ড ফিনালের আগে অতিত রেকর্ড এগিয়ে রাখছে লিভারপুলকে। দু দলের ৫ মোকাবেলায় ৩ জয় অলরেডদের ১৯৮১র ফাইনাল ও ২০০৯ সালের দুই জয়। তবে সবশেষ দুই মোকবেলায় ২০১৪ সালে রোনালদো, রামোসরা জিতেছে দুই ম্যাচই।

জিদান ও ক্লপ শীষ্যদের লড়াইয়ে অভিজ্ঞতায় ঢের এগিয়ে রিয়াল মাদ্রিদ। ক্রিয়ানো রোনালদো একাই খেলতে যাচ্ছেন তার ষষ্ঠ ফাইনাল ম্যাচ। সে হিসেবে গ্যালকটিকোর বর্তমান ফুটবলারদের সম্মিলিত ফাইনাল খেলার অভিজ্ঞাতা ৪৭ বার। অন্যদিকে লিভারপুলের বর্তমান দলের কারও নেই ফাইনালের অভিজ্ঞতা।

জিদান কোচ হিসেবে তার প্রথম দুই সিজনে শিতেছে দুই শিরোপা এবার হ্যাটট্রিকের সামনে দাড়িয়ে। অন্যদিকে ক্লপ কোচ হিসেবে সবধরনের টুর্নামেন্টে সবশেষ ৫ ফাইনালেই হেরেছেন।

তবে অলরেডদের হতাশ হবার কিছু নেই। সালার ১০, অভিষেক সিজনে ফিরমিনিয়োর রেকর্ড ১০ আর সাইদো মানের ৯ গোলে এই মৌসুমে সবচেয়ে বেশি ৪৬ গোল করা দলটি ভেঙ্গে দিতে পারে রিয়ালের সাফল্য দুর্গ।

কিয়েবের এই মাঠেই ২০১২র ইউরো ফাইনালে সার্জিও রামোসের গোলে শিরোপা জিতেছিল স্পেন। এবার রিয়াল দলপতি ক্লাবের হয়ে সফল হবেন কিনা তার উত্তর মিলবে আজ?









Leave a reply