ভারতে সাজা ভোগের পর দেশে ফিরলো ২৫ তরুণ-তরুণী

|

দেশে ফেরা ২৫ তরুণ-তরুণী।

বেনাপোল প্রতিনিধি:

দেশে ফিরেছেন ভারতে পাচার হওয়া ২৫ বাংলাদেশি তরুণ-তরুণী। বিভিন্ন মেয়াদে সাজাভোগ শেষে বিশেষ ট্রাভেল পারমিটের মাধ্যমে দেশে ফেরেন তারা।

মঙ্গলবার (২৮ জুন) সন্ধ্যায় বেনাপোল চেকপোস্টে ভারতের পেট্রাপোল ইমিগ্রেশন পুলিশ বেনাপোল চেকপোস্ট ইমিগ্রেশন পুলিশের কাছে তাদেরকে হস্তান্তর করেন। দেশে ফিরে আসা ২৫ জনের মধ্যে ১২ তরুণ ও ১৩ তরুনী রয়েছে। এরা হলেন- জুনায়েদ শেখ, আরিফুল ইসলাম, ইমন আক্তার, আব্দুল মমিন, শুভ ফারাজ্জী, খলিল শেখ, জাকির হোসেন, আবু সৈয়দ গাজী, রবিউল শেখ, ফাইজুল ভূঁইয়া, হাসিব শেখ, জান্নাতি, আমেনা আক্তার, অর্পি খাতুন, খাদিজা খাতুন, রুকসানা, লাবনী খাতুন, ইমলি রাণী, শুকলা মণ্ডল,
বিলকিস বেগম, শিরিনা খাতুন, লিপি আক্তার, জুবেদা বেগম, হোসনেয়ারা আক্তার ও রোজিনা আক্তার।

ফেরত আসা জাকির হোসেন বলেন, সংসারে অভাব-অনটনের কারণে আয়-রোজগারের আসায় দালালের মাধ্যমে সীমান্ত পথে ভারতের কলকাতা শহরে যান তিনি। পরে সেখানে কাজ করার সময় অবৈধভাবে বসবাস করার অপরাধে পুলিশ তাদের আটক করে জেল হাজতে পাঠায়। সেখান থেকে সংলাপ নামে একটি এনজিও সংস্থা তাদের ছাড়িয়ে তাদের নিজস্ব শেল্টার হোমে রাখে। দুই বছর পর আজ দেশে ফিরলেন তিনি।

বেনাপোল ইমিগ্রেশন পুলিশের ওসি রাজু আহম্মেদ বলেন, ট্রাভেল পারমিটে ফেরত আসা বাংলাদেশিদের বেনাপোল পোর্ট থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে। সেখান থেকে এনজিও সংস্থা জাস্টিস এন্ড কেয়ার এবং মহিলা আইন সমিতি তাদেরকে তাদের পরিবারের কাছে হস্তান্তর করবেন বলে জানান তিনি।

যশোর জাস্টিস এন্ড কেয়ারের সিনিয়র প্রোগ্রাম অফিসার মুহিত হোসেন বলেন, ভারত ফেরতদের যশোর জাস্টিস এন্ড কেয়ার, রাইটস যশোর ও মহিলা আইনজীবী সমিতির নিজস্ব শেল্টার হোমে রাখা হবে। পরে তাদেরকে তাদের পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে।

/এসএইচ





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply