বর্ণবৈষম্যের কারণে অবসরের সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন এমবাপ্পে!

|

ছবি: সংগৃহীত

বর্ণবৈষম্যের কারণে জাতীয় দল থেকে অবসরের সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন কিলিয়ান এমবাপ্পে। ফরাসি ফুটবল সভাপতির এক মন্তব্যের জবাবে এ কথা জানান তিনি। অভিযোগ করেন, গত ইউরো চ্যাম্পিয়নশিপে বর্ণবাদের শিকার হয়েছিলেন তিনি।

ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপে সাদামাটা পারফরমেন্সের কারণে জাতীয় দল থেকে অবসরের গুঞ্জন উঠেছিল কিলিয়ান এমবাপ্পেকে নিয়ে। সে সময় সমালোচনার তীরে বিদ্ধ হয়েছিলেন এই ফরাসি ফরোয়ার্ড। তখন সেভাবে কিছু না বললেও এবার মুখ খুললেন তিনি। রীতিমতো বোমা ফাটিয়ে সবাইকে হতবাক করে দিয়ে এমবাপ্পে জানালেন, খারাপ পারফরমেন্সের জন্য নয়, বরং বর্ণবাদের শিকার হয়ে এমন সিদ্ধান্ত নিতে চেয়েছিলেন তিনি।

সর্বশেষ ইউরো চ্যাম্পিয়নশিপে ফেবারিট হিসেবেই আসর শুরু করেছিল বর্তমান বিশ্বচ্যাম্পিয়ন ফ্রান্স। তবে রাউন্ড অব সিক্সটিনের লড়াইয়ে সুইজারল্যান্ডের কাছে হেরে বিদায় নিতে হয় তাদের। আর সেই ব্যর্থতার দায় অনেকটাই দেয়া হয়েছিল এমবাপ্পেকে। তবে তার কারণ যে পেনাল্টি মিস নয়, সেটাই জানালেন তিনি।

সম্প্রতি ফরাসি ফুটবলের প্রধান লু গেরেতের মন্তব্যে আবারও চাউড় হয় ঘটনাটি। তিনি জানান, ব্যর্থতার দায় সইতে না পেরে অবসরের সিদ্ধান্ত নিতে চেয়েছিলেন এমবাপ্পে। লু গেরেতের এমন মন্তব্যে কড়া ভাষায় জবাব দেন এই ফরোয়ার্ড। এমবাপ্পে বলেন, সভাপতি যা বলেছেন তা মোটেও সত্য নয়। আমি তাকে স্পষ্টভাবে ব্যাখ্যা করেছিলাম বিষয়টি বর্ণবাদের সঙ্গে সম্পর্কিত। তবে বর্ণবাদের কোনো ঘটনা সেখানে ঘটেছিল বলে মানতে নারাজ ছিলেন সভাপতি।

বল পায়ে ক্ষিপ্র গতিতে অন্য ফুটবলারদের পেছনে ফেলতে জুড়ি নেই এমবাপ্পের। ফ্রান্সের জার্সিতে এখন পর্যন্ত ৫৭ ম্যাচে ২৭ গোল করেছেন তিনি।

আরও পড়ুন: কাতার বিশ্বকাপে ব্রাজিলকে ফেভারিট বলছেন কার্লোস, তালিকায় আরও পাঁচ দেশের নাম

/এম ই





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply