অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে বিয়ে বাড়িতে ডাকাতি

|

নড়াইল প্রতিনিধি

নড়াইল সদরের বালিয়াডাঙ্গা গ্রামে বিয়ে বাড়িতে ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। সোমবার (১৪ এপ্রিল) গভীর রাতে এ ঘটনা ঘটে। ডাকাতরা গ্রিলের তালা ভেঙ্গে ঘরে ঢুকে আত্মীয়-স্বজনসহ পরিবারের লোকদের অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে ১২ ভরি স্বর্ণালংকার, টাকা এবং মোবাইল ফোন সেট লুট করে নিয়ে যায়।

গৃহকর্তা ইদ্রিস আলী জানান, শনিবার ধুমধাম করে তার মেয়েকে লোহাগড়া উপজেলার লক্ষ্মীপাশায় এক প্রবাসীর সঙ্গে বিয়ে দেন। সোমবার মেয়ে-জামাই তাদের বাড়িতে আসেন। এ সময় তাদের আত্মীয়-স্বজনেরাও বাড়িতে ছিলেন। মুখোশধারী ডাকাতেরা ওইদিন (সোমবার) গভীর রাতে গ্রিলের তালা ভেঙ্গে ঘরে ঢুকে অস্ত্রের মুখে তাদের জিম্মি করে ১২ ভরি স্বর্ণালংকার, বিয়ের উপহার পাওয়া এক লাখ ৫৭ হাজার টাকা এবং তাদের ব্যবহৃত পাঁচটি মোবাইল ফোন সেট লুট করে নিয়ে যায়। এ সময় নববধূর কাছ থেকে এবং শো-কেজ ও ওয়্যারড্রব রাখা স্বর্ণালংকার ও টাকা লুটে নেয় তারা। ১০-১২ জন ডাকাতের মধ্যে চারজন মুখোশধারী এবং তাদের কাছে একটি আগ্নোয়াস্ত্রসহ ধারালো অস্ত্র ছিল।

ডাকাতিকালে বাঁধা দেয়ায় ইদ্রিস আলীসহ চারজনকে বেদম মারধর করে তারা (ডাকাতরা)। বিয়ে বাড়িতে এ ডাকাতির ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।

নড়াইল সদর থানার ওসি আনোয়ার হোসেন জানান, পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। এ ঘটনায় জড়িতদের খুঁজে বের করার চেষ্টা চলছে। #









Leave a reply