সশস্ত্র ছিনতাইকারীর বিরুদ্ধে এক মায়ের প্রতিরোধ

|

সাও পাওলোর এক সড়কের পাশে কিছু মহিলা দাঁড়িয়ে আছেন বাচ্চা সাথে নিয়ে। সহজ টার্গেট মনে করে, তাদের ওপর অস্ত্র নিয়ে চড়াও হয় এক ছিনতাইকারী। হতভাগ্য দুর্বৃত্ত জানতো না সেখানে দাড়ানো মহিলাদের মধ্যে একজন অফ ডিউটি পুলিশ কর্মকর্তাও রয়েছেন।
পুলিশ কর্মকর্তা কাতিয়া ডা সিলভা সাস্ত্রে তার ৭ বছরের মেয়েকে স্কুলে নিয়ে যাচ্ছিলেন মা দিবস উপলক্ষে অনুষ্ঠানে অংশ নিতে। পথেই এমন কাণ্ড। ঘটনার আকস্মিকতা চকিতে সামলে উঠে কাতিয়াও তার সাথে থাকা পিস্তল বের করে গুলি চালান ছিনতাইকারীর ওপর।
ছিনতাইকারী ঘুণাক্ষরেও ভাবেনি এমন কিছু ঘটতে পারে তার সাথে। বুকে গুলি খেয়ে মুহূর্তেই রাস্তায় লুটিয়ে পড়ে কাতরাতে থাকে। কাতিয়াও অপরাধীকে বাগে এনে তার অস্ত্রটি নিজ হেফাজতে নিয়ে নেয়। পুরো ঘটনাটি ধরা পড়ে রাস্তায় বসানো ক্লোজ সার্কিট ক্যামেরায়। আর দ্রুতই তাই ভাইরাল হয়ে পড়ে গোটা বিশ্বে।
ঘটনার পরপরই গুলিবিদ্ধ ছিনতাইকারীকে সাও পাওলোর সান্তা কাসা দে সুজানা হাসপাতালে নেয়া হয়। কিন্তু শেষ রক্ষা হয়নি। হাসপাতালের জরুরী বিভাগেই মারা যায় ছিনতাইকারী। জানা যায়, খুব কাছে থেকে তিনবার গুলি চালানো হয়েছে তার বুকে।
এদিকে, দুই সন্তানের জননী কাতিয়া সাস্ত্রেকে এই বীরত্বের জন্য বিশেষ সম্মাননা জানিয়েছেন সাও পাওলোর গভর্নর মারসিও ফ্রাঙ্কা। এক টুইট বার্তায় তিনি লিখেছেন, সঠিক মুহূর্তে এমন সাহসী পদক্ষেপ নিয়ে তিনি অনেক মা ও শিশুর জীবন বাঁচিয়েছেন।

 









Leave a reply