আসামিদের ধরছে না পুলিশ, বয়ামে করে বিচ্ছিন্ন হাত নিয়ে সংবাদ সম্মেলনে ভুক্তভোগী

|

পিরোজপুর প্রতিনিধি:

পিরোজপুরের শিকদারমল্লিক ইউনিয়ন পরিষদ সদস্য রুহুল আমিন শেখের দুই পা ভেঙে ফেলা ও কদমতলা ইউনিয়ন যুবলীগের সদস্য নাদিম খানের হাত কেটে নেয়ার ঘটনায় করা মামলার আসামিদের গ্রেফতারের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন করেছেন ভুক্তভোগীরা। এসময় নিজেরে হাতের বিচ্ছিন্ন অংশ বয়ামে করে নিয়ে উপস্থিত হন নাদিম খান।

বৃহস্পতিবার (২৬ মে) দুপুরে পিরোজপুর প্রেসক্লাব মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন পিরোজপুর সদর উপজেলার শিকদারমল্লিক ইউনিয়ের ৯ নং ওয়ার্ডের ইউনিয়ন পরিষদ সদস্য মো. রুহুল আমিন শেখ। এ সময় তার সাথে বিচ্ছিন্ন হাত নিয়ে উপস্থিত ছিলেন কদমতলা ইউনিয়ন যুবলীগের সদস্য নাদিম খান।

লিখিত বক্তব্যে রুহুল আমীন শেখ জানান, গত ২০২১ সালের ৮ ডিসেম্বর সকালে পিরোজপুর-নাজিরপুর সড়কের ঝনঝনিয়া এলাকায় কয়েকজন সন্ত্রাসী তার মোটরসাইকেলের গতিরোধ করে জোরপূর্বক একটি বাগানে নিয়ে ধারালো অস্ত্র ও লোহার পাইপ দিয়ে পিটিয়ে তার দুই পা ভেঙে দেয়। পরে তাকে মৃত ভেবে সন্ত্রাসীরা একটি বাগানে ফেলে রেখে যায়। এছাড়া ২০২২ সালের ১৩ জানুয়ারি কদমতলা ইউনিয়ন যুবলীগের সদস্য নাদিম খানকে হত্যার উদ্দেশ্যে হামলা চালায় সন্ত্রাসীরা। পরে ধারালো অস্ত্র দিয়ে নাদিম খানের হাত কেটে বিচ্ছিন্ন করে ফেলে তারা।

লিখিত বক্তব্যে রুহুল আমিন শেখ আরও জানান, তাদের ওপর হামলার ঘটনায় মামলা হলেও অভিযুক্তরা বীরদর্পে এলাকায় ঘুরে বেরাচ্ছে। এ দুইটি মামলার গ্রেফতারি পরোয়ানা নিয়ে আসামি এস এম বায়েজিদ প্রকাশ্যে পুলিশের সাথে পিরোজপুর সদরের বিভিন্ন এলাকায় এক সাথে সভা-সমাবেশ যোগদান করছে।

তবে অভিযোগের বিষয়ে পিরোজপুর সদর থানার ওসি আ জা মো. মাসুদুজ্জামান জানান, উক্ত মামলায় আসামির প্রাথমিক সংশ্লিষ্টতা না থাকায় পুলিশ তাদের গ্রেফতার করছে না।

/এডব্লিউ





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply