মেসি-রোনালদো আধুনিক যুগের দুই সেরা ফুটবলার: সালাহ

|

ফর্মের তুঙ্গে আছেন মোহাম্মদ সালাহ। লিভারপুলের হয়ে অভিষেক মৌসুমেই ৫০ ম্যাচ খেলে করেছেন ৪৩ গোল। স্বাভাবিকভাবেই এবার ‘ব্যালন ডি অর’র লড়াইয়ে থাকছেন তিনি। এরই মধ্যে লিওনেল মেসি ও ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর সাথে তার তুলনা করা শুরু করেছেন অনেকে। কিন্তু এর সাথে মোটেই একমত নন ‘মিশরের রাজা’। তার কথা, মেসি-রোনালদো আধুনিক যুগের দুই সেরা ফুটবলার। তাদের কাতারে যেতে দীর্ঘদিন ধারাবাহিক পারফর্ম করতে হবে।

মৌসুমের শুরুতে মাত্র ৩৬.৯ মিলিয়ন ইউরোতে রোমা থেকে সালাহকে উড়িয়ে আনে লিভারপুল। এর পর থেকেই দ্যুতি ছড়িয়ে যাচ্ছেন তিনি। অনন্য নৈপুণ্য প্রদর্শন করে দলকে তুলেছেন চ্যাম্পিয়নস লিগের ফাইনালে। ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের শিরোপা জেতাতে না পারলেও অলরেডদের রেখেছেন সেরাদের লড়াইয়ে। বাঁ পায়ের জাদুতে মুগ্ধ করেছেন ভক্তদের।

এমন জাদুকরি পারফরম্যান্সের কারণে সালাহ’র জনপ্রিয়তাও বাড়ছে। মিলছে একের পর এক সাফল্যের স্বীকৃতিও। গেল মাসে পেশাদার ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের (পিএফএ) বর্ষসেরা খেলোয়াড়ের পুরস্কার জিতেছেন তিনি। সদ্যই তার হাতে উঠেছে একসঙ্গে ৩ পুরস্কার। বগলদাবা করেছেন লিভারপুলের সেরা খেলোয়াড়, প্লেয়ার্স প্লেয়ার অব দ্য সিজন, ফুটবল রাইটার্স অ্যাসোসিয়েশনের ট্রফি।

সালাহ’র এমন উত্থানে বার্সেলোনা ও রিয়াল মাদ্রিদের দুই সুপারস্টার মেসি-রোনালদোর সাথে তার তুলনা করছেন অনেকে। তবে তাতে ‘বিরক্ত’দ্য ফারাওখ্যাত ফুটবলার, ফুটবলের সবচেয়ে মর্যাদার পুরস্কারটি জিততে আমি মুখিয়ে আছি। তবে তাদের সঙ্গে তুলনায় যেতে চাই না।

তুরস্কের এক টিভি চ্যানেলকে দেয়া সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, মেসি-রোনালদো আধুনিক যুগের দুই সেরা ফুটবলার। দীর্ঘদিন ধরে তারা চমকপ্রদ পারফরম্যান্স প্রদর্শন করে আসছেন। তাদের সাথে তুলনায় যেতে হলে আমাকে আরও ধারাবাহিক হতে হবে। বছরের পর পারফরম করে যেতে হবে।

২৫ বছর বয়সী এ ফুটবলার বলেন, তাদের সঙ্গে আমার নাম উচ্চারিত হওয়াটা অনেক গর্বের ও আনন্দের। তারা গেল এক দশক ধরে শীর্ষে। এ সময়ে দুজনই ফুটবলকে অসংখ্য বিস্ময় উপহার দিয়েছেন। তাদের পারফরম্যান্স তুমুল ধারাবাহিক। দুজনই গ্রেট প্লেয়ার। এদের সাথে তুলনায় যেতে আমাকেও তেমনটি করে দেখাতে হবে।’

বুঝাই যাচ্ছে, সাফল্যের শিখরে থেকে মাটিতেই পা আছে সালাহ’র।

যমুনা অনলাইন: এটি





সম্পর্কিত আরও পড়ুন







Leave a reply