পর্যটন খাতে রাঙ্গামাটির অপার সম্ভাবনা দেখছে না আলোর মুখ

|

আসামবস্তি থেকে কাপ্তাই রুটে রাঙ্গামাটির প্রাকৃতিক দৃশ্য।

একদিকে সবুজ পাহাড়, অন্যপাশে কাপ্তাই হ্রদের নীল জলরাশি। রাঙ্গামাটির আসামবস্তি থেকে কাপ্তাই রুটের উঁচুনিচু সড়ক ধরে এগিয়ে যেতেই দেখা মিলবে নয়নাভিরাম দৃশ্যের। তবে সরকারি সহায়তার অভাবে থমকে আছে এখানকার বেসরকারি অনেক উদ্যোগ। কাজে লাগানো যাচ্ছে না অপার সম্ভাবনা, আসছে না বিদেশি পর্যটকও।

গতানুগতিক কিছু স্পটের বাইরে আসামবস্তি থেকে কাপ্তাই রুটের এই সড়কটি হয়ে উঠেছে পর্যটনের নতুন সম্ভাবনা। সড়কটির দু’পাশে বেসরকারি উদ্যোগে বেশকিছু রির্সোট গড়ে উঠলেও সুযোগ-সুবিধা অপ্রতুল।

সম্প্রতি ৩০ কোটি টাকা ব্যয়ে ১৮ কিলোমিটার সড়কটি সম্প্রসারণের উদ্যোগ নেয়ায় বেড়েছে পর্যটন বিকাশের সম্ভাবনাও। তবে তা কাজে লাগাতে সরকারি পৃষ্টপোষকতা চান উদ্যোক্তারা। স্থানীয় উদ্যোক্তাদের মতে, রাঙ্গামাটিতে দর্শনীয় স্থানের সংখ্যা সীমিত। সরকারি সহায়তার অভাবে থমকে আছে অনেক উদ্যোগ।

রাঙ্গামাটি রিসোর্ট ওনার্স অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক সুমেত চাকমা বলেন, সরকারি বা বেসরকারিভাবে কোনো উপায়েই আমরা দেশীয় ও বিদেশি পর্যটকদের আকৃষ্ট করতে পারছি না। এটিই আমাদের ব্যর্থতা। তবে এ নিয়ে কাজ চলছে বলে দাবি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান অংসুপ্রু চৌধুরীর। তিনি বলেন, প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে ভরপুর রাঙ্গামাটিতে পর্যটকদের জন্য সম্ভাবনা তৈরি হচ্ছে। তাই রাস্তা-ঘাট ব্রিজ নির্মাণের বিষয়টি বিবেচনা করা হবে।

এসজেড/





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply