সরকারি আবাসনের পুকুরে মাছ ধরা নিয়ে সংঘর্ষ, অন্তঃসত্ত্বাসহ আহত ৯

|

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি:

ঝিনাইদহের হরিণাকুণ্ডু উপজেলার রঘুনাথপুর সরকারি আবাসনের পুকুরে মাছ ধরাকে কেন্দ্র সহিংসতায় অন্তঃসত্ত্বা নারীসহ নয়জন আহত হয়েছে। আহতদের মধ্যে এক নারীর অবস্থা গুরুতর হওয়ায় তাকে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

আহতরা জানান, গত বিশ বছর আগে থেকে কালাপাহাড়ীয়া আবাসনের পুকুর ও আংশিক জমি নিয়ে স্থানীয় আমিরুল ইসলাম নামের এক ব্যক্তির সাথে সরকারের মামলা চলমান রয়েছে। এই জমি ও পুকুর নিয়ে আবাসনে বসবাসরতদের মধ্যে একটি পক্ষ আমিরুলের অনুসারী।

বৃহস্পতিবার (১৯ মে) আনুমানি সকাল ১০টা নাগাদ ঐ পুকুরে জামালের ছেলে সাঈদ, মন্টুর ছেলে আকাশ, ইসলামের ছেলে লালন ও শরাফতের ছেলে রাসেল মাছ ধরে। বেলা ১১টা নাগাদ পুকুরের দাবীদার আমিরুল খবর পেয়ে আবাসনে আসে এবং তার পক্ষের লোকজন নিয়ে হামলা করে। এতে উভয় পক্ষের ৯ জন আহত হয়।

হরিণাকুণ্ডু স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. জামিনুর রশিদ জানান বৃহস্পতিবার দুপুর ১টা নাগাদ আহতরা হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য আসেন। এর মধ্যে মহিলাসহ ৪ জনকে ভর্তি করা হয়েছে।

তবে স্থানীয় থানা পুলিশ বলছে, মূলত চম্পা খাতুন ও তার ছেলে মামুন আহত হয়েছে। আর বাকিরা মামলা থেকে বাঁচতে আহত না হয়েও হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে। তবে এ বিষয়ে অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলেও জানায় পুলিশ।

/এডব্লিউ





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply