সাবেক সংসদ সদস্য জ্যোতির ৭ বছরের কারাদণ্ড

|

নূর আফরোজ বেগম জ্যোতি। ফাইল ছবি।

বগুড়া ব্যুরো:

দুর্নীতির মামলায় অষ্টম জাতীয় সংসদের সংরক্ষিত আসনের সংসদ সদস্য ও বিএনপি নেত্রী নূর আফরোজ বেগম জ্যোতিকে ৭ বছরের কারাদণ্ড ও ৫৩ লাখ টাকা অর্থদণ্ডাদেশ দিয়েছেন আদালত। বৃহস্পতিবার (১৯ মে) বিকেলে স্পেশাল জজ আদালতের বিচারক এমরান হোসেন চৌধুরী এই রায় দেন।

দুদকের আইনজীবী আবুল কালাম আজাদ জানান, দুর্নীতির মাধ্যমে নূর আফরোজ বেগমের বিরুদ্ধে ৫৩ লাখ ২২ হাজার টাকার অবৈধ সম্পদ অর্জনের তথ্য পায় দুদক। প্রাথমিক অনুসন্ধানে সত্যতা মেলার পর দুদক তার বিরুদ্ধে ২০১৪ সালে এই মামলা করে। মামলার বিচারকাজ শুরু হয় ২০১৭ সালে। প্রায় ৫ বছর বিচারকাজ শেষে বৃহস্পতিবার বিকেলে মামলার রায় ঘোষণা করেন বিচারক।

রায়ে দুর্নীতি দমন আইনের ২৬ এর (২) ধারায় সাবেক এই সংসদ সদস্যকে ২ বছরের কারাদণ্ড ও ৫০ হাজার টাকার অর্থদণ্ড এবং ২৭ এর (১) ধারায় ৫ বছরের কারাদণ্ড দেন আদালত। একই সঙ্গে এই ধারায় তাকে ৫৩ লাখ ২২ হাজার ৭৯০ টাকা রাষ্ট্রীয় কোষাগারে জমা দেয়ার নির্দেশও দেয়া হয়।

বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য অধ্যক্ষ নূর আফরোজ জ্যোতি ২০০১ সালে অনুষ্ঠিত অষ্টম জাতীয় সংসদে সংরক্ষিত আসনের সদস্য ছিলেন। জাতীয়তাবাদী সমবায় দলের কেন্দ্রীয় সভাপতির দায়িত্বও পালন করছেন বগুড়ার এই বিএনপি নেত্রী।

জেডআই/





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply