নরসিংদীতে স্কুল ছুটি দিয়ে রাজনৈতিক সম্মেলন, ক্ষোভ অভিভাবকদের

|

স্টাফ রিপোর্টার, নরসিংদী:

নরসিংদীর পলাশে শিক্ষার্থীদের ছুটি দিয়ে একটি বিদ্যালয়ের মাঠে উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রিবার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন অনেক অভিভাবক। পরিস্থিতির কারণে অনেক কিছুই করতে হয় বলে জানিয়েছে বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

সোমবার (১৬ মে) সকালে পলাশ থানা সদর মডেল উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে এই ত্রিবার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। জানা যায়, প্রতিদিন সকাল ১০টায় ক্লাস শুরু হলেও আওয়ামী লীগের সম্মেলনের কারণে সোমবার ক্লাস শুরু হবে সকাল পৌনে ৮টায়, বিষয়টি বিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে আগের দিনই শিক্ষার্থীদের জানিয়ে দেয়া হয়। অল্প সংখ্যক শিক্ষার্থী যথাসময়ে ক্লাসে আসলেও পরবর্তীতে সময় কমিয়ে ও কয়েকটি ক্লাস বাদ দিয়ে সকাল সাড়ে ৯টায় তাদের ছুটি দিয়ে দেয়া হয়। এ ঘটনায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন অভিভাবকেরা।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে কয়েকজন অভিভাবক বলেন, অন্য কোনো মিলনায়তন বা খোলা স্থানে সম্মেলনের আয়োজন করা হলে ভালো হতো। এতে স্কুলের শিক্ষার্থীদের ছুটি দেয়ার প্রয়োজন হতো না। শিক্ষার্থীরাও ক্ষতিগ্রস্ত হতো না। তারা বলেন, বিদ্যালয়ের মাঠে রাজনৈতিক দলের সভা-সমাবেশের কারণে শিক্ষার্থীদের লেখাপড়ার সমস্যা হয়।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ জানায়, নবনির্মিত নতুন ভবনটি হস্তান্তর না হওয়ায় বিদ্যালয়ে দুই শিফটে ক্লাস হচ্ছে। সম্মেলনের আয়োজক কর্তৃপক্ষ বিদ্যালয়টির ম্যানেজিং কমিটির কাছ থেকে মৌখিকভাবে অনুমতি নিয়েছেন। সম্মেলনের কারণে সকালের শিফটের শিক্ষার্থীদের ১০টার পরিবর্তে পৌনে ৮টায় ক্লাস শুরু হয়। পরিস্থিতির প্রেক্ষাপটে আজকের জন্য ৩০ মিনিট করে মোট ৪টি ক্লাস হয়েছে তাদের। আবার দুপুর ২টা থেকে পরের শিফটের ক্লাসগুলো ঠিকঠাক হয়েছে। মাঝের সময়টুকুতে শিক্ষকরা মিলে শিক্ষার মান উন্নয়নে মিটিং করেছেন।

স্কুলের মাঠে সম্মেলন কতটুকু যৌক্তিক জানতে চাইলে পলাশ থানা সদর মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক বরুণ চন্দ্র দাস জানান, কত কারণেই তো আমরা স্কুল এক-দু’দিন বন্ধ দিই। সম্মানিত লোকজন আসবেন, স্থানীয় এমপি মহোদয় থাকবেন, তাই পরিস্থিতির প্রেক্ষাপটে এই অনুমতি দেয়া হয়েছে। কখনো কখনো পরিস্থিতির কারণে অনেক কিছুই করতে হয়।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা গৌতম মিত্র জানান, বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের অনুমতি নিয়ে এমন সম্মেলনের আয়োজন করা যেতে পারে। তবে আমি যতদূর জেনেছি, দুই শিফটের শিক্ষার্থীদের ক্লাসের মধ্যবর্তী সময়ে এ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। পরবর্তী সময়ে শিক্ষার্থীদের ক্ষতি পুষিয়ে দেয়ার কথা দিয়েছে বিদ্যালয় সংশ্লিষ্টরা।

এটিএম/





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply