‘আসানি’র প্রভাবে উত্তাল সমুদ্র, কক্সবাজারে পর্যটকদের সতর্ক করছে প্রশাসন

|

কক্সবাজার প্রতিনিধি:

বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড় আসানির প্রভাবে উত্তাল কক্সবাজারের সমুদ্র উপকূল। গত দু’দিন ধরে কক্সবাজারে গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি হচ্ছে। কক্সবাজারের সকল মাছ ধরার ট্রলারকে উপকূলের কাছাকাছি নিরাপদে অবস্থান করতে বলেছে আবহাওয়া অফিস।

ঈদের ছুটির পরও কক্সবাজারে এখনও প্রচুর পর্যটক অবস্থান করছে। কক্সবাজার জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, কক্সবাজারে এখন ৩০ থেকে ৪০ হাজার পর্যটক অবস্থান করছে। সৈকতে আছে ১০ হাজারের বেশি পর্যটক। সৈকতে আসা পর্যটকদের গোসল করতে বিভিন্ন সতর্কবার্তা দিয়ে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে মাইকিং করা হচ্ছে।

কক্সবাজারের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট (এডিএম) মো. আবু সুফিয়ান জানিয়েছেন, ঘূর্ণিঝড় আসানির প্রভাবে সাগর উত্তাল রয়েছে। সাগরে বড় বড় ঢেউয়ের সৃষ্টি হচ্ছে। এ অবস্থায় সাগরে গোসল করা নিরাপদ নয়। পর্যটকদের সাগরে গোসল করার বিষয়ে সতর্কতা জারি করা হয়েছে। সৈকতে আসা পর্যটকদের সার্বিক নিরাপত্তায় কক্সবাজারের জেলা প্রশাসন প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছে।

কক্সবাজার জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে সম্ভাব্য দুর্যোগ মোকাবেলায় করণীয় বিষয়ে জেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটি সভা করেছে। জেলা প্রশাসনের শহীদ এটিএম জাফর আলম সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত সভায় জেলা প্রশাসক মো. মামুনুর রশীদ জানিয়েছেন, সম্ভাব্য দুর্যোগ মোকাবেলায় জেলার ৫৭৬টি আশ্রয়কেন্দ্র প্রস্তুত আছে।

জেডআই/





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply