স্ত্রী ও দুই কন্যাকে গলাকেটে হত্যা, চিকিৎসক আটক

|

মানিকগঞ্জের ঘিওরে দুই সন্তানসহ স্ত্রীকে গলাকেটে হত্যার অভিযোগ উঠেছে দন্ত চিকিৎসক রুবেলের বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় তাকে আটক করেছে পুলিশ।

রোববার (৮ মে) ভোররাতে উপজেলার আঙ্গুরপাড়া এলাকায় এই ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন- রুবেলের স্ত্রী লাভলী আক্তার (৩৫), বড় মেয়ে বানিয়াজুরী সরকারি স্কুল অ্যান্ড কলেজের এসএসসি পরীক্ষার্থী ছোঁয়া আক্তার (১৬) ও ছোট মেয়ে স্থানীয় বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণির শিক্ষার্থী কথা আক্তার (১২)।

স্থানীয়রা জানায়, রুবেল ও লাভলীর ভালোবাসার বিয়ে। দীর্ঘদিন যাবত তারা সুখে-শান্তিতে সংসার করে আসছিল। গত ১৫ বছর ধরে রুবেল আঙ্গারপাড়া গ্রামে তার শ্বশুর বাড়িতে বসবাস করে আসছিল। পারিবারিক কলহের জেরেই এমন ঘটনা ঘটতে পারে বলে স্থানীয়দের ধারণা।

পুলিশ জানায়, ভোররাতে প্রতিবেশীরা ঝগড়া শুনতে পান। পরে ঘরে তালা লাগিয়ে পালিয়ে যান দন্ত চিকিৎসক স্বামী রুবেল। পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে দুই মেয়েসহ স্ত্রীর গলাকাটা মরদেহ উদ্ধার করে। পারিবারিক বিবাদের জেরে এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটে থাকতে পারে। হত্যার কারণ অনুসন্ধানে তদন্ত চলছে। মরদেহগুলো ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে।
আরও পড়ুন: দেশের উত্তরাঞ্চলে বেড়েছে জ্বালানি তেলের সঙ্কট
ইউএইচ/





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply