মহিলাদের ড্রাইভিং লাইন্সেন্স না দিতে তালেবানের নির্দেশ

|

আফগানিস্তানের হেরাত শহরের তালেবান নেতারা বলেছেন, ড্রাইভিং শিক্ষকদের উচিত মহিলাদের নামে লাইসেন্স ইস্যু না করা। আফগানিস্তান বরাবরই রক্ষণশীল ও পিতৃতান্ত্রিক দেশ হিসেবে পরিচিত। তবুও বড় শহরগুলোতে মহিলাদের গাড়ি চালানো অস্বাভাবিক কিছু নয়। বিশেষ করে আফগানিস্তানের উত্তর-পশ্চিমের হেরাতের মতো প্রগতিশীল শহরে মহিলাদের গাড়ি চালানো খুব সাধারণ বিষয় বলেই মনে করা হয়। খবর এনডিটিভির।

হেরাত শহরের ট্রাফিক ব্যবস্থাপনার প্রধান জান আগা আচাকজাই বলেন, আমরা মহিলাদের শহরে মহিলাদের গাড়ি চালানো থেকে বিরত রাখতে কোনো লিখিত নির্দেশনা দেইনি। আমরা শুধু মৌখিকভাবে ড্রাইভিং স্কুলগুলোকে মহিলাদের নামে নতুন ড্রাইভিং লাইসেন্স ইস্যু করতে নিষেধ করেছি।

একটি ড্রাইভিং ইনস্টিটিউটের মালিক ২৯ বছর বয়সী নারী আদিলা আদিল বলেন, আগামী প্রজন্মের মায়েরা যেন গাড়ি চালানোর মতো সুবিধা আর না পায়, তালেবান তা নিশ্চিত করতেই এই পদক্ষেপ নিয়েছে। আমাদের বলা হয়েছে, আমরা যেন মহিলাদের গাড়ি চালানো না শেখাই এবং তাদের নামে নতুন লাইসেন্স ইস্যু না করি।

এর আগে, ক্ষমতাসীন তালেবান গত বছর আগস্ট মাসে আফগানিস্তান নিজেদের দখলে নেয় এবং প্রতিশ্রুতি দেয় যে, তারা ১৯৯৬-২০০১ সালের মতো করে দেশ পরিচালনা করবে না। কিন্তু তারা ধীরে ধীরে আফগানদের অধিকার সীমিত করেছে। বিশেষ করে, মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও সরকারি চাকরির ক্ষেত্রে নিষেধাজ্ঞা আরোপের সম্মুখীন হয়েছে নারীরা।

এটিএম/





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply