দালাইলামার বাড়িতে অতিথি হলেন কিংবদন্তি শচিন

|

বিশ্বে শান্তি ও শৃঙ্খলা বজায় রাখা এবং সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি ছড়িয়ে দিতে তিব্বতের আধ্যাত্মিক নেতা দালাইলামার সঙ্গে ঐকমত্য পোষণ করেছেন ক্রিকেটের মহাতারকা শচীন টেন্ডুলকার।

বৃহস্পতিবার ম্যাকলিওডগঞ্জে দালাইলামার বাড়িতে আতিথ্য নেন কিংবদন্তি এ ক্রিকেটার। সেখানে শান্তি-সম্প্রীতি ও ঐক্য নিয়ে কথা বলেন তারা।

ধর্মশালা পরিদর্শনে চার দিনের সফরে সেখানে আছেন টেন্ডুলকার। দালাইলামার বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে ভারতরত্নজয়ী ৪৫ বছর বয়সী এ ক্রিকেটার বলেন, এটি একটি চমৎকার ও গুরুত্বপূর্ণ বৈঠক ছিল। তার সঙ্গে শুধু কিছুক্ষণ সময় কাটাতে এবং তাকে হ্যালো বলতে চেয়েছিলাম। আমি সবসময় এখানে এসে আশীর্বাদ নিতে চেয়েছিলাম। আমরা বিশ্ব শান্তি ও সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি ছড়িয়ে দিতে কথা বলেছি।

গেল মঙ্গলবার ধর্মশালায় সফরে আসেন টেন্ডুলকার। সফরে এসে ভারতীয় অনূর্ধ্ব-১৯ ক্রিকেট দলের সঙ্গে সংক্ষিপ্ত অধিবেশনে যোগ দেন এবং আগামীর সম্ভাবনাময়ী ক্রিকেটারদের সঙ্গে কিছু সময় কাটান।

সেখানে উপস্থিত থাকা ভারতের সাবেক ক্রিকেটার বিক্রম রাঠুর বলেন, শচীন পুরো অধিবেশনে ছিলেন এবং আগামীর তরুণ এসব ক্রিকেটারকে বোলিং ও ব্যাটিং নিয়ে পরামর্শ দেন। অধিবেশন শেষে তরুণ ক্রিকেটারদের সঙ্গে বিভিন্ন বিষয় নিয়ে প্রায় ৪০ মিনিট ধরে কথা বলেন। এটি ক্রিকেটারদের জন্য একটি দুর্দান্ত মুহূর্ত ছিল।

এর পর লিটল মাস্টার হিমাচল প্রদেশ ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের জাদুঘরের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply