হজযাত্রার ছুটি সংশোধনের আবেদন করলেন বিব্রত অরুন চন্দ্র

|

হজব্রত পালনে ৫০ দিনের ছুটি পাওয়ার ঘটনায় বিব্রত গোপালগঞ্জের সরকারি বঙ্গবন্ধু কলেজের হিসাব বিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক অরুন চন্দ্র বিশ্বাস। ছুটি সংশোধনের জন্য মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর বরাবর পুনরায় আবেদন করেছেন তিনি।

বৃহস্পতিবার অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বরাবর পাঠানো আবেদনপত্রে অরুন চন্দ্র বিশ্বাস জানান, তিনি পবিত্র রমজান, শবে কদর ও ঈদুল ফিতরের ছুটিতে ধর্মীয় স্থান ও উপাসনালয় পরিদর্শনে ভারত গমনের আবেদন করেছিলেন। এজন্য, ২১ দিনের ছুটি চেয়েছিলেন। কিন্তু, মন্ত্রণালয় হজব্রত পালনের জন্য ৫০ দিনের ছুটি দেয়। এমতাবস্থায় ছুটি সংশোধনের প্রয়োজন।

এ ঘটনায় অরুন চন্দ্রের ছুটি সংশোধন চেয়ে আরেকটি আবেদন করেছেন গোপালগঞ্জ
সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ।


যমুনা অনলাইনকে অরুন চন্দ্র বিশ্বাস জানান, এ ঘটনায় আমি বিব্রত। লোকজন বিষয়টা নিয়ে হাসি-ঠাট্টা করছে।

কদিন ধরেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে হাসির খোরাক যোগাচ্ছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের একটি প্রজ্ঞাপন। যেখানে দেখা যাচ্ছে, সনাতন ধর্মাবলম্বী শিক্ষক অরুন চন্দ্রকে বিশ্বাসকে হজে যেতে ৫০ দিন ছুটি দেয়া হয়েছে! কীভাবে এমন ঘটনা ঘটলো সে হিসাব মিলাতে পারছেন না হিসাব বিজ্ঞানের এই শিক্ষক। শেষ পর্যন্ত তীর্থযাত্রার ছুটি মেলে কিনা সেটি নিয়েও পড়েছেন সংশয়ে।
এ ঘটনায় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে মন্ত্রণালয়ের খামখেয়ালিপনাকে দুষছেন সাধারণ মানুষ।

যমুনা অনলাইন: টিএফ









Leave a reply