মেয়েকে ধর্ষণের মামলা করায় বাবার ওপর হামলা

|

কামাল হোসাইন, নেত্রকোণা

মেয়েকে ধর্ষণের অভিযোগে আদালতে মামলা করায় মামলার আসামি ও তাদের লোকজনের হামলায় গুরুতর আহত হয়ে ন্যায় বিচারের আশায় আইনের দ্বারে দ্বারে ঘুরছে এক অসহায় পিতা।
মঙ্গলবার নেত্রকোনা জেলা প্রেসক্লাবে এসে সাংবাদিকদের নিকট কান্নাজড়িত কণ্ঠে অসহায় পিতা রইছ উদ্দিন অভিযোগ করে বলেন, বারহাট্টা উপজেলার আসমা ইউনিয়নের পূর্ব গোড়ল গ্রামে তার স্ত্রী ও মেয়ে বসবাস করলেও তিনি সংসারের চাকা সচল রাখার জন্য ঢাকায় ছোট খাট ব্যবসা করে থাকেন। তার প্রতিবেশী মৃত কুদরত আলীর পুত্র তসিফ মিয়া(২৫) তার মেয়েকে ঘরে একা পেয়ে গত ২৩ মার্চ বিকালে ধারালো অস্ত্রের মুখে ধর্ষণ করে। খবর পেয়ে আমি বাড়িতে এসে সব কিছু জেনে বারহাট্টা থানায় মামলা করতে গেলে পুলিশ আদালতে মামলা করার পরামর্শ দেয়। পরবর্তীতে ২৮ মার্চ আদালতে মামলা করলে আসামি ও তার লোকজন মামলা তুলে নেয়ার জন্য অব্যাহত চাপ ও প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে আসছিল। মামলা তুলে না নেয়ায় গত ৩১ মার্চ বিকালে আমি বাড়ি ফেরার পথে ধর্ষক ও তার লোকজন ধারালো অস্ত্র ও লাঠি সোটা নিয়ে আমার উপর হামলা চালিয়ে প্রাণনাশের চেষ্টা চালায়। আমার ডাক-চিৎকারে আশেপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে তারা চলে যায়। স্থানীয় লোকজন উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে। এ ব্যাপারে আমি বাদী হয়ে গত ২ এপ্রিল তসিফ মিয়াসহ ৬ জনকে আসামি করে বারহাট্টা থানায় মামলা দয়ের করেছি। আমি আপনাদের মাধ্যমে ন্যায় বিচার চাই।

বারহাট্টা থানার অফিসার ইনচার্জ মেজবাহ উদ্দিন আহমেদ বলেন, আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply