বাবাকে গলাকেটে হত্যা, আটক ছেলে-পুত্রবধূ

|

ছবি: প্রতীকী

রাজশাহী ব্যুরো:

সম্পত্তি ও দ্বিতীয় বিয়ে করতে চাওয়ায় রাজশাহীতে বাবাকে গলাকেটে হত্যা করেছে ছেলে ও পুত্রবধূ। এ ঘটনায় ছেলে স্বপন ও তার স্ত্রী সুমি খাতুনকে আটক করেছে পুলিশ।

পুলিশ বৃহস্পতিবার ভোর রাতে নিহত বাবা সাজ্জাদ হোসেনের মরদেহ বাথরুমের সেফটিক ট্যাংক থেকে উদ্ধার করেছে। নগরীর দামকুড়া থানা এলাকায় এ ঘটনা ঘটেছে।

পুলিশ জানায়, মঙ্গলবার রাতে সাজ্জাদ হোসেন নিখোঁজ হন। পরে তার ভাই সাজদার রহমান থানায় একটি জিডি করেন। এই জিডির সূত্র ধরে পুলিশ তার ছেলো স্বপন ও তার স্ত্রী সুমিকে আটকে করে জিজ্ঞাসাবাদ করে। স্বপন স্বীকারোক্তি দেন, তিনি তার বাবা সাজ্জাদের মাথায় পলিথিন পেঁচিয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যা চেষ্টা করেন। এতে ব্যর্থ হলে গলাকেটে হত্যা করেন। হত্যার পর বাবার লাশ বাড়ির টয়লেটের সেফটিক ট্যাংকিতে ফেলে দেন।

নিহতের স্বজনরা জানান, এক বছর আগে হত্যাকারী স্বপনের মা মারা যায়। এরপর তার বাবা বাসায় দ্বিতীয় বিয়ে করার কথা বললে সম্পত্তি ভাগ হয়ে যাবে এই চিন্তা থেকে বাবাকে হত্যা করে। এ ঘটনায় মামলা দায়েরের প্রক্রিয়া চলছে।
আরও পড়ুন: বাঁশখালী পৌরসভার সদ্য বিদায়ী মেয়রকে ঘরে ঢুকে মারধর
ইউএইচ/





সম্পর্কিত আরও পড়ুন





Leave a reply